kalerkantho

সোমবার । ৭ আষাঢ় ১৪২৮। ২১ জুন ২০২১। ৯ জিলকদ ১৪৪২

সৈকতে ফের শুশুকের মৃতদেহ

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল   

১১ মে, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সমুদ্রসৈকতে ফের উদ্ধার হলো মৃত শুশুক। কুয়াকাটা সমুদ্রসৈকতে মাত্র আট ঘণ্টার ব্যবধানে গত রবিবার সন্ধ্যায় আরো একটি মৃত শুশুক উদ্ধার করা হয়। এটা মারা যাওয়ার জন্য দূষণসহ একাধিক কারণকে দায়ী করছেন সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা। ধারণা করা হচ্ছে, জেলেদের জালে আটকে মৃত্যু হয়েছে ডলফিনটির। এর আগেও বেশ কয়েকটি মৃত ডলফিন ও তিমি সৈকতে ভেসে এসেছিল বলে জেলেরা জানিয়েছেন। তবে কী কারণে গভীর সমুদ্রের এসব প্রাণী মারা যাচ্ছে তা নিশ্চিত করতে পারেনি মৎস্য বিভাগ। কুয়াকাটা ট্যুরিজম ম্যানেজমেন্ট অ্যাসোসিয়েশনের জ্যেষ্ঠ সহসভাপতি হোসাইন আমির জানান, গত রবিবার বিকেলের দিকে তীব্র দুর্গন্ধ নাকে আসে। পরে দেখা যায় শুশুকের পচা-গলা দেহ ভেসে এসেছে। এটিকে কুয়াকাটা মাদরাসাসংলগ্ন সৈকতে পড়ে থাকতে দেখা যায়। এর শরীরে আঘাতের চিহ্ন ছিল। দুর্গন্ধ বের হওয়ায় পৌরসভা কর্তৃপক্ষ পাশেই মাটি চাপা দিয়ে রাখে শুশুকটি। মাত্র কয়েক ঘণ্টার ব্যবধানে আরেকটি শুশুক ভেসে আসার কারণে উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন পরিবেশপ্রেমীরা। সরকারি ব্রজমোহন (বিএম) কলেজের প্রাণিবিদ্যার সাবেক সহযোগী অধ্যাপক মোহাম্মদ রফিকুল ইসলাম বলেন, খাদ্যের সন্ধানে মাছ ধরার জালের কাছে চলে আসছে ও জালে আটকা পড়ছে শুশুকগুলো। তা ছাড়া এর মাথায় মেলান নামে এক ধরনে তরল থাকে। যার সাহায্যে এরা শব্দ প্রক্ষেপণের মাধ্যমে সামনের বাধা অনুভব করতে পারে। কিন্তু মাথায় আঘাত পেলে সেই ক্ষমতা হারিয়ে ফেলে দিগভ্রান্ত হয়ে যায় এরা। তবে নদীর নাব্যতা কমে জল ঘোলা হয়ে যাওয়ার কারণেও হুমকিতে পড়েছে শুশুকরা।