kalerkantho

বুধবার । ২৯ বৈশাখ ১৪২৮। ১২ মে ২০২১। ২৯ রমজান ১৪৪২

যেভাবে সিআইডির জালে সৌরভ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৮ মার্চ, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



যেভাবে সিআইডির জালে সৌরভ

তাঁর নাম নন্দিনী। সাতক্ষীরা সরকারি মহিলা কলেজে বাংলা বিষয়ে অনার্সের শিক্ষার্থী। চট্টগ্রামের ছেলে সৌরভের সঙ্গে ফেসবুকে যোগাযোগের মাধ্যমে তাঁর প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। কিন্তু হঠাৎ সৌরভের সঙ্গে যোগাযোগ কমিয়ে দেওয়ায় নন্দিনীর ফেসবুক আইডি হ্যাক করেন সৌরভ। আর নন্দিনীর চরিত্র হনন করতে বাজে মন্তব্য ও ছবি পোস্ট শুরু করেন। এসব সইতে না পেরে আত্মহত্যা করেন নন্দিনী। আর মর্মস্পর্শী এ সংবাদ পত্রিকায় দেখে মাঠে নামে সিআইডির সাইবার টিম। অবশেষে তারা চট্টগ্রাম থেকে গ্রেপ্তার করেছে অভিযুক্ত সৌরভ দাস গুপ্তকে (২১)। এরপর বেরিয়ে এসেছে পুরো কাহিনি।

সিআইডি সূত্র গতকাল রবিবার জানায়, গত সপ্তাহে সৌরভকে গ্রেপ্তারের পর সাতক্ষীরা সদর থানার পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়। গতকাল সৌরভ সাতক্ষীরা আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

সিআইডি জানায়, গত ৯ নভেম্বর সকালে সাতক্ষীরা শহরের মুনজিতপুরের বিকাশ চৌধুরীর একমাত্র মেয়ে নন্দিনীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। কয়েক দিন পর নন্দিনীর বিয়ে হওয়ার কথা ছিল। এর মধ্যে তাঁর ফেসবুক আইডি কে বা কারা হ্যাক করে নানা বাজে লেখা পোস্ট করে। এসব সইতে না পেরে নন্দিনী আত্মহত্যা করেন বলে তাঁর পরিবার সাতক্ষীরা সদর থানায় মামলা করে।

সিআইডি মাঠে নেমে ফেসবুক কর্তৃপক্ষ, মোবাইল অপারেটর ও সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের সঙ্গে যোগাযোগ করে জানতে পারে, নন্দিনীর ফেসবুক আইডিটি চট্টগ্রামের বোয়ালখালী উপজেলার জয় চক্রবর্তী নামের একজনের মোবাইল ফোনে ব্যবহার হয়েছে। সিআইডির সাইবার পুলিশের বিশেষ টিম গত সপ্তাহে অভিযান চালিয়ে চট্টগ্রাম থেকে জয় চক্রবর্তীকে আটক করে। তাঁকে জিজ্ঞাসাবাদে জানা যায়, গত বছর নভেম্বর মাসে তাঁর বন্ধু সৌরভ তাঁদের বাড়িতে বেড়াতে এসে পাঁচ-ছয় দিন ছিলেন। তখন সৌরভ জয়ের মোবাইল ফোন ব্যবহার করে ফেসবুক চালান। জয়ের কথার পরে সাইবার টিম চট্টগ্রাম শহরের পাহাড়তলী এলাকা থেকে সৌরভকে গ্রেপ্তার করে। 

সৌরভ সিআইডিকে বলেন, নন্দিনীর সঙ্গে তাঁর পরিচয় ফেসবুকে। চ্যাটিংয়ের মাধ্যমে তাঁদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে ওঠে। এক বছরের মাথায় সৌরভ নন্দিনীর আচরণে পরিবর্তন খেয়াল করেন। তিনি সৌরভের সঙ্গে যোগাযোগ কমিয়ে দেন। সৌরভ মনে করেন নন্দিনী অন্য কারও সঙ্গে সম্পর্কে জড়িয়েছেন। সৌরভ পরিকল্পনা অনুুযায়ী তাঁকে ‘শিক্ষা’ দেওয়ার জন্য নন্দিনীর ফেসবুক আইডি হ্যাক করে তাঁর ধারণার সত্যতা পান। সৌরভ মনে করেন, তাঁর সঙ্গে নন্দিনী প্রতারণা করেছেন। নন্দিনীর আইডি থেকে তাঁর আত্মীয়-স্বজন, বন্ধু-বান্ধবের কাছে নন্দিনীর অন্তরঙ্গ ছবি, ভিডিও পাঠিয়ে দেন।

সিআইডির সাইবার ইন্টেলিজেন্স অ্যান্ড রিস্ক ম্যানেজম্যান্টের এসএসপি রেজাউল মাসুদ কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘ঘটনাটি উদঘাটনের জন্য আমরা মাঠে নামি। ফেসবুক কর্তৃপক্ষ অনেক ক্ষেত্রে সহযোগিতা না করলেও এ বিষয়ে সহযোগিতা করে।’



সাতদিনের সেরা