kalerkantho

শুক্রবার । ২০ ফাল্গুন ১৪২৭। ৫ মার্চ ২০২১। ২০ রজব ১৪৪২

বুড়িমারীর ঘটনায় জামিন পাননি চার আসামি

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৫ জানুয়ারি, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



পবিত্র কোরআন অবমাননার অভিযোগে লালমনিরহাটের বুড়িমারীতে শহিদুন্নবী জুয়েল নামে এক ব্যক্তিকে পিটিয়ে হত্যা ও মরদেহ পোড়ানোর ঘটনায় দায়ের মামলায় চার আসামির জামিন আবেদন খারিজ করে দিয়েছেন হাইকোর্ট। বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো. মোস্তাফিজুর রহমানের হাইকোর্ট বেঞ্চ গতকাল এ আদেশ দেন।

যাঁদের আবেদন খারিজ করা হয়েছে—মো. আশরাফুল ইসলাম, মো. বাইজিদ বোস্তামি, মো. আবদুর রহিম ও মো. হেলাল উদ্দিন। আদালতে রাষ্ট্রপক্ষে শুনানিতে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল মো. সারওয়ার হোসেন বাপ্পী। গত বছরের ২৯ অক্টোবর কোরআন অবমাননার গুজব ছড়িয়ে সুলতান রুবায়াত সুমন নামের আরেকজনসহ শহিদুন্নবী জুয়েলকে বুড়িমারী ইউনিয়ন পরিষদ ভবনে প্রথমে আটকে রাখা হয়। পরে উত্তেজিত জনতা ভবনের দরজা-জানালা ভেঙে প্রশাসনের কাছ থেকে জুয়েলকে ছিনিয়ে নিয়ে পিটিয়ে হত্যা করে। পরে মরদেহ পাটগ্রাম-বুড়িমারী মহাসড়কে নিয়ে পুড়িয়ে দেয়। নিহত জুয়েল রংপুর শহরের শালবন মিস্ত্রিপাড়া এলাকার আব্দুল ওয়াজেদ মিয়ার ছেলে। তিনি রংপুর ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক স্কুল অ্যান্ড কলেজের সাবেক গ্রন্থাগারিক এবং ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক ছাত্র। চাকরিচ্যুত হওয়ার পর তিনি কিছুটা মানসিক ভারসাম্যহীন হয়ে পড়েন বলে জানা যায়।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা