kalerkantho

বুধবার । ১৩ মাঘ ১৪২৭। ২৭ জানুয়ারি ২০২১। ১৩ জমাদিউস সানি ১৪৪২

বাংলাদেশ ভ্রমণে ফ্রান্সের সতর্কতা

পরিস্থিতি পর্যবেক্ষণ করছে ঢাকা

কূটনৈতিক প্রতিবেদক   

২৮ অক্টোবর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বাংলাদেশসহ কয়েকটি মুসলমান সংখ্যাগরিষ্ঠ দেশ সফরে ফ্রান্স তার নাগরিকদের সতর্ক করেছে। মহানবী হজরত মুহাম্মদ (সা.)-এর ব্যঙ্গচিত্রকে কেন্দ্র করে দানা বাঁধা বিক্ষোভ-অসন্তোষের পরিপ্রেক্ষিতে এ সতর্কতা দেওয়া হয়েছে। বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, গতকাল মঙ্গলবার ফ্রান্সের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের জারি করা সতর্কবার্তায় বাংলাদেশ ছাড়াও ইন্দোনেশিয়া, ইরাক ও মৌরিতানিয়ার নাম রয়েছে।

ফ্রান্সের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় নাগরিকদের পরামর্শ দিয়ে বলেছে, ব্যঙ্গচিত্র ঘিরে যেকোনো প্রতিবাদ-সমাবেশ বা যেকোনো জমায়েত থেকে তাদের দূরে থাকা উচিত। বিশেষ করে চলাফেরায় ও পর্যটক বা বিদেশি সম্প্রদায়ের লোকজনের জমায়েতের স্থানগুলোতে বাড়তি সতর্কতা অবলম্বন করা উচিত।

এদিকে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ গতকাল মঙ্গলবার ঢাকায় এক কর্মসূচি থেকে ফ্রান্সের সঙ্গে বাংলাদেশের কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করার দাবি জানিয়েছে। দলটি গতকাল ঢাকায় ফ্রান্স দূতাবাস ঘেরাওয়ের কর্মসূচি দিয়েছিল। তবে পুলিশি বাধার মুখে তারা দূতাবাস থেকে অনেক দূরেই সংক্ষিপ্ত সমাবেশ করে কর্মসূচি শেষ করে। অন্যদিকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও গত কয়েক দিন ধরে ফরাসি পণ্য ও ওষুধসামগ্রী বর্জনের পক্ষে প্রচারণা চলছে।

ফ্রান্সে ইসলাম ও মহানবী (সা.)-এর ব্যঙ্গচিত্র নিয়ে বিতর্কের মধ্যে ফরাসি প্রেসিডেন্ট ইমানুয়েল ম্যাখোঁর কিছু মন্তব্য সংকট আরো ঘণীভূত করেছে। অনেক মুসলিম দেশ এ নিয়ে আনুষ্ঠানিক প্রতিক্রিয়া জানিয়েছে। তবে বাংলাদেশ এখনো কোনো প্রতিক্রিয়া দেয়নি।

ঢাকার সরকারি সূত্রগুলো বলছে, পরিস্থিতির বিষয়ে তারা পুরোপুরি অবগত। অন্য দেশগুলোর প্রতিক্রিয়া ও সার্বিক পরিস্থিতি তারা পর্যবেক্ষণ করছে। ভিয়েনা কনভেনশন অনুযায়ী, স্বাগতিক দেশকে বিদেশি দূতাবাসগুলোর নিরাপত্তা ও সুরক্ষা নিশ্চিত করতে হয়। বাংলাদেশ তা করে চলেছে।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা