kalerkantho

বুধবার । ১০ অগ্রহায়ণ ১৪২৭। ২৫ নভেম্বর ২০২০। ৯ রবিউস সানি ১৪৪২

করোনা সতর্কতা

রাজধানীতে কুমারী পূজার আয়োজন থাকছে না

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৮ অক্টোবর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



এ বছর রাজধানীতে দুর্গাপূজার অন্যতম ঐতিহ্য অষ্টমী তিথিতে কুমারী পূজার আয়োজন থাকছে না। করোনা সতর্কতার কারণে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। একই কারণে সরকারের নির্দেশনা অনুযায়ী পূজার মূল আনুষ্ঠানিকতাও হবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে সীমিত আকারে। তাই বিজয়ায় বিসর্জনের শোভাযাত্রাও বন্ধ থাকবে।

গতকাল শনিবার ঢাকেশ্বরী মন্দিরে বাংলাদেশ পূজা উদযাপন পরিষদ আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব তথ্য জানানো হয়েছে। এ সময় পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি মিলন কান্তি দত্ত বলেন, সারা দেশে পূজা উদযাপন বিষয়ে পাঠানো ২৬ দফা নির্দেশনা পাঠানো হয়েছে। নির্দেশনায় কঠোরভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে বলা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, করোনা সংক্রমণ পরিস্থিতির কথা বিবেচনা করে ঢাকায় কুমারী পূজার আয়োজন থাকছে না। তবে ঢাকার বাইরে কুমারী পূজা হতে পারে। সে ক্ষেত্রে স্বাস্থ্য সচেতনতা ও নিরাপত্তার বিষয়টি নিশ্চিত করতে বলা হয়েছে। পূজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক নির্মল কুমার চ্যাটার্জি জানান, দুর্গোৎসব আয়োজনের প্রস্তুতি শেষ পর্যায়ে। এবার দেবী দুর্গা দোলায় চড়ে আসবেন, যাবেন গজে চড়ে। এবার ভোগের প্রসাদ বাদে প্রসাদ বিতরণ বন্ধ থাকবে। দুর্গাপূজায় মণ্ডপের সংখ্যা ৩০ হাজার ২১৩টি, যা গত বছরের চেয়ে এক হাজার ১৮৫টি কম।

উল্লেখ্য, গত ১৭ সেপ্টেম্বর মহালয়ার মধ্য দিয়ে দুর্গাপূজার আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়েছে। আগামী ২২ অক্টোবর মহাষষ্ঠী তিথিতে হবে দেবীর বোধন বা দেবীর ঘুম ভাঙানোর বন্দনা পূজা। পরদিন সপ্তমী পূজার মাধ্যমে শুরু হবে দুর্গোৎসবের মূল আচার অনুষ্ঠান। আগামী ২৬ অক্টোবর মহাদশমীতে প্রতিমা বিসর্জনে শেষ হবে দুর্গোৎসবের আনুষ্ঠানিকতা।

মন্তব্য