kalerkantho

সোমবার । ১০ কার্তিক ১৪২৭। ২৬ অক্টোবর ২০২০। ৮ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

মধ্যবর্তী নির্বাচনের নামে টালবাহানার প্রয়োজন নেই

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৮ অক্টোবর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মধ্যবর্তী নির্বাচনের নামে টালবাহানার প্রয়োজন নেই

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘মধ্যবর্তী নির্বাচনের দাবি একটি তামাশা। মধ্যবর্তী নির্বাচনের নামে মধ্যবর্তী টালবাহানার প্রয়োজন নেই। সময় হলে নির্বাচন হবে। তখন জনগণই ঠিক করবে পরবর্তী সরকার কে হবে।’ গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ট্রাস্টি বোর্ডের চেয়ারম্যান ড. জাফরুল্লাহ চৌধুরীর বক্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে ওবায়দুল কাদের এই মন্তব্য করেন।

গতকাল ঢাকা ম্যাস ট্রানজিট কম্পানি লিমিটেডের উদ্যোগে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনাসভায় ভার্চুয়ালি যুক্ত হয়ে তিনি এসব কথা বলেন। তাঁর সরকারি বাসভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে অনুষ্ঠানে যুক্ত হন তিনি। ঢাকা ম্যাস ট্রানজিট কম্পানি লিমিটেডের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এম এ এন ছিদ্দিকের সভাপতিত্বে ভার্চুয়াল প্ল্যাটফর্মে আরো বক্তব্য দেন জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী উদযাপন জাতীয় বাস্তবায়ন কমিটির প্রধান সমন্বয়ক ড. কামাল আবদুল নাসের চৌধুরী, বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব প্রফেশনালসের বঙ্গবন্ধু চেয়ার অধ্যাপক সৈয়দ আনোয়ার হোসেন, সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের সচিব মো. নজরুল ইসলাম। গত শুক্রবার জাতীয় প্রেস ক্লাবের সামনে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী সংগ্রামী দল আয়োজিত এক মানববন্ধনে ড. জাফরুল্লাহ বলেন, ‘ধর্ষণে, যৌন নিপীড়নে দেশ ভয়ানকভাবে অসুস্থ হয়ে পড়েছে। এ পরিস্থিতি থেকে উত্তরণে মধ্যবর্তী নির্বাচন ছাড়া প্রধানমন্ত্রীর সামনে অন্য কোনো পথ নেই।’

ওবায়দুল কাদের আরো বলেন, ‘দেশ যখন এগিয়ে যাচ্ছে, তখন একটি অপশক্তি দেশকে পিছিয়ে দেওয়ার নানা ষড়যন্ত্রে লিপ্ত। দেশ-বিদেশে কোথায় বৈঠক হচ্ছে, কী ষড়যন্ত্র চলছে।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা