kalerkantho

রবিবার । ৯ কার্তিক ১৪২৭। ২৫ অক্টোবর ২০২০। ৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

কুষ্টিয়ায় শিল্পপতিসহ জেলা পরিষদের চার কর্মীর নামে মামলা

নিজস্ব প্রতিবেদক, কুষ্টিয়া   

২২ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



কুষ্টিয়ায় প্রকাশ্যে জোরপূর্বক ব্যক্তিমালিকানা সম্পত্তিতে নির্মিত মার্কেট ভেঙে জমি জবরদখলকারী এক শিল্পপতি এবং জেলা পরিষদের পাঁচ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে পাঁচ কোটি টাকার ক্ষতিপূরণ মামলা করেছেন ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের চার সদস্য। গত রবিবার কুষ্টিয়ার যুগ্ম জেলা জজ রাকিবুল ইসলামের আদালতে দাখিল করা আরজিটি মামলা হিসেবে রেকর্ডভুক্ত করা হয়েছে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বাদীপক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট মাহাতাব উদ্দিন।

আদালত সূত্র জানায়, মামলাটি আমলে নিয়ে বিচারক আগামী ২৪ নভেম্বর বিবাদীদের আদালতে হাজির হওয়ার নির্দেশ দিয়েছেন। বিবাদীরা হলেন কুষ্টিয়া জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মনিরুজ্জামান, সহকারী প্রকৌশলী শফিকুল ইসলাম, সার্ভেয়ার মনিরুজ্জামান, প্রশাসনিক কর্মকর্তা শহীদুজ্জামান শাহিন এবং দখল করা জমিতে স্থাপনা গড়ে তোলা শিল্পপতি কেএনবি অ্যাগ্রো ইন্ডাস্ট্রিজের ব্যবস্থাপনা পরিচালক কামরুজ্জামান নাসির।

মামলার বাদী ও ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের সন্তান সাংবাদিক হোসাইনুল ইসলাম কালের কণ্ঠকে বলেন, ‘গত বছরের ১০ জুন বিকেলে কুষ্টিয়া সদর উপজেলার ঝিনাইদহ সড়কের বটতল এলাকায় আমার বাবা রাকিবুল ইসলামের মালিকানাধীন ও রেকর্ডভুক্ত জমির ওপর নির্মিত ২২টি দোকানসহ প্রামাণিক মার্কেট ভবনটি জেলা ও পুলিশ প্রশাসনের সহায়তায় গুঁড়িয়ে দিয়ে দখল করেন পাশের কেএনবি ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের মালিক কামরুজ্জামান নাসির।’ এদিকে ইজারা সূত্রে জমিটি কামরুজ্জামান নাসির নিজের বলে দাবি করলেও উল্লেখ করা মৌজার আরএস ৯৫৮ ও ২০২৮ দাগে জেলা পরিষদের কোনো জমি নেই বলে নিশ্চিত করেন সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা।

এ বিষয়ে কেএনবি অ্যাগ্রোর ব্যবস্থাপনা পরিচালক কামরুজ্জামান বলেন, ‘জমিটি আমাকে জেলা পরিষদ লিজ দিয়েছে। মামলা হয়ে থাকলে আমি আইনগতভাবে তা মোকাবেলা করব।’ জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মনিরুজ্জামানের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তিনি এ বিষয়ে কোনো কথা বলতে চাননি।

 

 

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা