kalerkantho

বুধবার । ২০ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ৩ জুন ২০২০। ১০ শাওয়াল ১৪৪১

মিরপুরে বিএনপির মিছিলে লাঠিপেটা ১০ জন আহত

মির্জা ফখরুল বলেন, সরকার এখন আরো বেশি মাত্রায় দানবীয় হয়ে উঠেছে

নিজস্ব প্রতিবেদক   

২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



মিরপুরে বিএনপির মিছিলে লাঠিপেটা ১০ জন আহত

খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে রাজধানীর মিরপুরে গতকাল শনিবার মিছিল করেছে বিএনপি। এ সময় পুলিশের লাঠিপেটায় দলের সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবীর রিজভীসহ কমপক্ষে ১০ নেতাকর্মী আহত হওয়ার দাবি করা হয়েছে। এ ঘটনায় দেওয়া এক বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, সরকার এখন আরো বেশি মাত্রায় দানবীয় হয়ে উঠেছে।

বিএনপির দপ্তর থেকে পাঠানো এক বিবৃতিতে বলা হয়, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে গতকাল সকাল ১০টায় মিরপুর কাঁচাবাজারের সামনে থেকে বিক্ষোভ মিছিল শুরুর পরপরই পুলিশ লাঠিপেটা শুরু করে। এ সময় রুহুল কবীর রিজভীসহ ক্রীড়াবিষয়ক সম্পাদক আমিনুল হক, ছাত্রদল কেন্দ্রীয় সিনিয়র সহসভাপতি কাজী রওনকুল ইসলাম শ্রাবণ, সহসভাপতি ওমর ফারুক কাউসার, ছাত্রদল ঢাকা কলেজ শাখার সহসভাপতি সাইফুল ইসলাম তুহিনসহ অন্তত ১০ নেতাকর্মী আহত হন। তাঁদের মধ্যে রিজভী মিরপুরের আল হেলাল হাসপাতালে চিকিৎসা নেন। গুরুতর আহত কয়েকজনকে পঙ্গু হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হয়।

মিছিলে লাঠিপেটার উল্লেখ করে এর নিন্দা জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, জনগণের দ্বারা নির্বাচিত নয় বলেই এই বিনা ভোটের সরকার বিরোধী দল ও মতের পরোয়া করছে না। ক্ষমতার দাম্ভিকতায় ত্রাস সৃষ্টির মাধ্যমে তারা গোটা দেশকে দখলে নিতে চায়। সারা দেশে গুম, খুন, অপহরণ, বিচারবহির্ভূত হত্যা এবং বিএনপিসহ বিরোধী দলগুলোর শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতে দলীয় সন্ত্রাসী বাহিনী ও পুলিশ দিয়ে হামলা চালিয়ে আবারও অবৈধ পন্থায় রাষ্ট্রক্ষমতায় আসার চক্রান্তে লিপ্ত এই সরকার। বিএনপির শান্তিপূর্ণ মিছিলে এই হামলা আবারও প্রমাণ করল যে দেশে পুলিশি শাসন চলছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা