kalerkantho

শুক্রবার । ২৪ জানুয়ারি ২০২০। ১০ মাঘ ১৪২৬। ২৭ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪১     

সব রেনিটিডিন ওষুধ সাময়িক নিষিদ্ধ

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৫ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



এসিড নিঃসরণ প্রতিরোধসহ পেটের পীড়ার নানা উপসর্গের চিকিৎসায় বহুল প্রচলিত রেনিটিডিন গ্রুপের সব ধরনের ওষুধ অবশেষে বাংলাদেশে সাময়িক নিষিদ্ধ করা হয়েছে। ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তরের মহাপরিচালক মেজর জেনারেল মোহাম্মদ মাহবুবুর রহমান গত বুধবার এসংক্রান্ত এক গণবিজ্ঞপ্তি জারি করেছেন। তবে গতকাল বৃহস্পতিবার বিষয়টি গণমাধ্যমকে জানানো হয়।

ওই গণবিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, জনস্বার্থে দেশে রেনিটিডিন জাতীয় সব ধরনের ওষুধ উৎপাদন, বিক্রয়, বিতরণ ও রপ্তানি স্থগিত করা হলো।

একই বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, ভারতের মেসার্স সারাকা ল্যাবরেটরিজ লিমিটেড ও মেসার্স এস এম এস লাইফ সাইন্স থেকে আমদানি করা রেনিটিডিন হাইড্রোক্লোরাইড কাঁচামাল এবং ওই কাঁচামাল দিয়ে উৎপাদিত ফিনিশড পণ্যের নমুনা বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার স্বীকৃত ল্যাবরেটরিতে পরীক্ষা করে ‘এমডিএমএ ইম্পিউরিটি’ গ্রহণযোগ্য মাত্রার চেয়ে বেশি পাওয়া গেছে।

এর আগে ভারতীয় ওই দুটি প্রতিষ্ঠানের কাঁচামাল থেকে তৈরি রেনিটিডিনে ক্যান্সার সৃষ্টিকারী উপাদান ধরা পড়ে ব্রিটেনে এক গবেষণায়। সেটি নিয়ে দেশ-বিদেশে বিতর্ক শুরু হওয়ার একপর্যায়ে গত ২৯ সেপ্টেম্বর কেবল ভারতীয় ওই কম্পানি দুটি থেকে কাঁচামাল আমদানি এবং তা ব্যবহার করে ওষুধ উৎপাদন ও বাজারজাতকরনের ওপর নিষেধাজ্ঞা দিয়েছিল ঔষধ প্রশাসন অধিদপ্তর।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা