kalerkantho

সোমবার  । ১৯ শ্রাবণ ১৪২৭। ৩ আগস্ট  ২০২০। ১২ জিলহজ ১৪৪১

সৌদি আরবে বাস দুর্ঘটনা

নিহত ওমরাহ যাত্রীদের মধ্যে বাংলাদেশিও আছেন

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৯ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সৌদি আরবের মদিনার কাছে বাস দুর্ঘটনায় নিহতদের মধ্যে কয়েকজন বাংলাদেশি রয়েছেন বলে আশঙ্কা করছে বাংলাদেশ মিশন। জেদ্দা বাংলাদেশ কনস্যুলেটের কনসাল জেনারেল এফ এম বোরহানউদ্দিন গতকাল শুক্রবার রাতে বলেন, ‘বাসে আগুন লেগে লাশগুলো এতটা পুড়ে গেছে যে চেনার উপায় নেই। আমরা প্রাথমিকভাবে ধারণা করছি, নিহতদের মধ্যে আমাদের সাতজনের মতো থাকতে পারে। তবে ডিএনএ পরীক্ষার আগে নিশ্চিত করে কিছু বলা যাবে না।’ বিডিনিউজ।

গত বুধবার সন্ধ্যায় মদিনা থেকে ১৭০ কিলোমিটার দূরে মারকাজ আল-আখাল এলাকায় হিজরা রোডে ওই দুর্ঘটনায় ৩৫ জনের মৃত্যু হয়। আহত হন চারজন।

রিয়াদের বাথা এলাকার দার আল মিকাত ওমরাহ এজেন্সির ওই বাস মোট ৫০ জন যাত্রী নিয়ে মদিনা গিয়েছিল। এক দিন পর ৩৯ জন আরোহী নিয়ে মদিনা থেকে মক্কার উদ্দেশে রওনা হয়ে বাসটি দুর্ঘটনায় পড়ে।

আল-আখাল গ্রামের কাছে সড়কের সংস্কারকাজে থাকা একটি লোডারের সঙ্গে সংঘর্ষ হলে বাসটিতে আগুন ধরে যায়। সৌদি সংবাদমাধ্যমের খবরে প্রাথমিকভাবে বলা হয়েছিল, নিহতরা এশিয়া ও বিভিন্ন আরব দেশের নাগরিক। দার আল মিকাত ওমরাহ এজেন্সির মালিক সৌদি আরবপ্রবাসী বাংলাদেশি সাংবাদিক শেখ লিয়াকত আহম্মেদ জানান, দুর্ঘটনায় পড়া ওই বাসে ১১ জন পাকিস্তানি, ১৩ জন ভারতীয়, ৯ জন বাংলাদেশি, পাঁচজন ইয়েমেনি যাত্রী ছিলেন। আর বাসের চালক ছিলেন সিরিয়ার নাগরিক।

জেদ্দার বাংলাদেশ কনস্যুলেটের কর্মকর্তারা বলছেন, বাস যাত্রার শুরুতে মোট ১৩ জন বাংলাদেশি ওই দলে ছিলেন বলে তাঁরা তথ্য পেয়েছেন। তাঁদের কয়েকজন পরে নেমে যান।

মন্তব্য