kalerkantho

বুধবার । ১১ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১৩ রবিউস সানি     

দিরাইয়ে শিশু তুহিন হত্যা

স্বীকারোক্তি দেননি বাবা দুই চাচাসহ কারাগারে

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি   

১৯ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সুনামগঞ্জের দিরাইয়ে শিশু তুহিন হত্যাকাণ্ডে তিন দিনের রিমান্ড শেষে বাবা ও দুই চাচাকে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। গতকাল শুক্রবার বিকেলে বাবা আব্দুল বাছির, চাচা আব্দুল মোছাব্বের ও জমসেদকে কারাগারে পাঠানো হয়। তবে বাবা আব্দুল বাছির রিমান্ড শেষে আদালতে স্বীকারোক্তি দেননি বলে জানা গেছে। 

এর আগে গত ১৫ অক্টোবর চাচা নাছির ও চাচাতো ভাই শাহরিয়ার ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন।

পুলিশ জানায়, তুহিন হত্যায় স্বীকারোক্তি না দেওয়ায় গত ১৫ অক্টাবর বাবা ও দুই চাচাকে পাঁচ দিনের রিমান্ড চায় পুলিশ। আদালত তিন দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। রিমান্ডের সময় শেষ হলে গতকাল বিকেলে পুলিশ তিনজনকে কারাগারে পাঠায়।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, বিকেলে বাবা আব্দুল বাছিরকে জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মো. খালেদ মিয়ার আদালতে উপস্থিত করা হয়। পুলিশ তাঁকে স্বীকারোক্তির জন্য পাঠালেও শেষ পর্যন্ত তিনি স্বীকারোক্তি দেননি বলে নির্ভরযোগ্য সূত্রে জানা গেছে। তবে আদালত ও পুলিশ বাবার স্বীকারোক্তি দেওয়া, না দেওয়ার বিষয়ে কোনো বক্তব্য দেয়নি।

এদিকে গতকাল বিকেলে সিলেটের ডিআইজি কামরুল আহসান ঘটনাস্থল খেজাউড়া গ্রাম পরিদর্শন করে এলাকাবাসীর সঙ্গে কথা বলেন। এ মামলায় যথাযথ তদন্তের মাধ্যমে দ্রুত সময়ে অভিযোগপত্র (চার্জশিট) দেওয়া হবে বলে জানান।

সুনামগঞ্জের ভারপ্রাপ্ত পুলিশ সুপার মো. মিজানুর রহমানকে তুহিনের বাবা ও চাচার স্বীকারোক্তি বিষয়ে জিজ্ঞাসা করা হলে তিনি বিষয়টি এড়িয়ে গিয়ে বলেন, ‘আমি ডিআইজি স্যারের সঙ্গে বাইরে আছি।’ তবে তিনজনকে কারাগারে পাঠানোর কথা তিনি নিশ্চিত করেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা