kalerkantho

রবিবার । ২০ অক্টোবর ২০১৯। ৪ কাতির্ক ১৪২৬। ২০ সফর ১৪৪১                

‘নিয়োগের জন্য নয়, ধার হিসেবে টাকা নিয়েছিলাম’

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি   

৯ অক্টোবর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের (রাবি) উপ-উপাচার্য চৌধুরী মো. জাকারিয়া কর্তৃক আইন বিভাগের সভাপতি অধ্যাপক আব্দুল হান্নানের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ অসত্য বলে দাবি করা হয়েছে। গতকাল মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগে এক সংবাদ সম্মেলনে অধ্যাপক আব্দুল হান্নান এ দাবি করেন। সংবাদ সম্মেলনে অধ্যাপক হান্নান জানান, তিনি ওই টাকা ধার হিসেবে নিয়েছিলেন এবং পরিশোধও করেছেন। তিনি ধার নেওয়া টাকা ও তা পরিশোধের ব্যাংক রিসিপ্ট ও ব্যাংক অ্যাকাউন্ট স্টেটমেন্টের ফটোকপি এবং চাকরিপ্রত্যাশী নুরুল হুদার সঙ্গে কথোপকথনের একটি রেকর্ড উপস্থাপন করেন। গত ৩ অক্টোবর রাবি উপ-উপাচার্য অধ্যাপক চৌধুরী মো. জাকারিয়া সংবাদ সম্মেলন করে অধ্যাপক হান্নানের বিরুদ্ধে শিক্ষক নিয়োগে অনিয়মের অভিযোগ তোলেন। গতকাল সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে অধ্যাপক হান্নান বলেন, ‘আমার দুই লাখ টাকার প্রয়োজন ছিল। ওই সময় নুরুল হুদার কাছ থেকে সপ্তাহ খানেকের জন্য দুই লাখ টাকা ধার নেই। গত বছর ৪ নভেম্বর নুরুল হুদা নীলফামারীর সৈয়দপুর শাখা ইসলামী ব্যাংক থেকে রাজশাহী শাখা ইসলামী ব্যাংকের ডিসেন্ট ট্রেডার্স’র অ্যাকাউন্টের মাধ্যমে আমাকে দুই লাখ টাকা দেয়। এরপর গত বছর ১২ নভেম্বর আমি ব্যাংকের মাধ্যমেই নুরুল হুদাকে টাকাটা ফেরত দেই। অথচ বিভাগের চাকরির নিয়োগ বোর্ড অনুষ্ঠিত হয় পরের দিন ১৩ নভেম্বর।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা