kalerkantho

মঙ্গলবার । ১২ নভেম্বর ২০১৯। ২৭ কার্তিক ১৪২৬। ১৪ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

সীমান্তে বিএসএফের গুলি

১০ বাংলাদেশি আহতের ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ আসকের

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



রাজশাহী সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) গুলিতে ১০ বাংলাদেশি কৃষক আহত হওয়ার ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও গভীর উদ্বেগ প্রকাশ করেছে আইন ও সালিশ কেন্দ্র (আসক)। গতকাল মঙ্গলবার সংগঠনটির দেওয়া এক বিবৃতিতে জানানো হয়, চলতি বছরের আট মাসে বিএসএফের গুলিতে ২৩ বাংলাদেশি নিহত হয়েছে।

জানা গেছে, গত সোমবার সকালে বাংলাদেশ সীমান্তের ভেতরে নিজ জমিতে কাজ করছিল কৃষকরা। এ সময় বিএসএফ সদস্যরা তাদের ওপর গুলি চালায়। এতে ১০ কৃষক আহত হয়। আহত কৃষকরা সবাই চর খিদিরপুরের বাসিন্দা। এদিকে হামলার ওই ঘটনা সম্পর্কে বিএসএফ জানায়, সকালে তিন-চারজন বাংলাদেশি কৃষক ঘাস কাটার সময় সীমান্ত অতিক্রম করে ভারতে ঢুকে পড়ে। এ সময় তাদের চ্যালেঞ্জ করা হলে ওই সব কৃষক বিএসএফকে লক্ষ্য করে দা ছুড়ে মারে। পরে কৃষকরা সেখান থেকে পালিয়ে যায় এবং সংগঠিত হয়ে বিএসএফের ওপরে হামলা করতে আসে। পরে বিএসএফ আত্মরক্ষার জন্য রাবার বুলেট ছোড়ে।

আসকের নির্বাহী পরিচালক শীপা হাফিজ বিবৃতিতে বলেন, ‘আসক মনে করে, বাংলাদেশের পক্ষ থেকে ভারতীয় কর্তৃপক্ষের কাছে গুলির ঘটনার ব্যাখ্যা চাওয়া আবশ্যক। আমরা ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর নানা অপ্রত্যাশিত আচরণ প্রত্যক্ষ করি। অনেক বাংলাদেশি নাগরিক তাদের গুলিতে প্রাণ হারিয়েছে এবং অনেকে তাদের অত্যাচারের শিকার হয়েছে।’ তিনি আরো বলেন, ‘গত আট মাসে বিএসএফের গুলিতে ২৩ জন বাংলাদেশি নাগরিকের মৃত্যুর সংবাদ গণমাধ্যমে প্রকাশিত হয়েছে। আমরা মনে করি, এ বিষয়ে বাংলাদেশ ও ভারত দুই পক্ষের মধ্যে অতি দ্রুত কার্যকর আলোচনা হওয়া অত্যন্ত জরুরি।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা