kalerkantho

বুধবার । ২০ নভেম্বর ২০১৯। ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২২ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

বিদেশি পণ্যের শুল্কায়ন চালু করতে এনবিআরকে চিঠি

চিলমারী নৌবন্দর গতিশীল করতে নতুন পরিকল্পনা

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



স্থবির হয়ে পড়া চিলমারী নৌবন্দরের কার্যক্রম গতিশীল করতে নতুন পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়। এর অংশ হিসেবে চিলমারীতে বিদেশি পণ্যের শুল্কায়ন চালু করতে জাতীয় রাজস্ব বোর্ডকে (এনবিআর) চিঠি দেওয়া হয়েছে। সংসদীয় কমিটিতে পাঠানো নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়ের এক প্রতিবেদন থেকে এ তথ্য জানা গেছে।

এ বিষয়ে নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়সংক্রান্ত সংসদীয় কমিটির সদস্য এম এ লতিফ কালের কণ্ঠকে জানান, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ঘোষণা অনুযায়ী চিলমারী নৌবন্দরকে গতিশীল করতে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। এনবিআর শুল্কায়নকাজ শুরু করলে বিদেশি পণ্য আমদানি-রপ্তানি শুরু হবে। তিনি আরো জানান, বন্দরটি সচল করা গেলে ভারত নেপাল ও ভুটানের সঙ্গে বাংলাদেশের বাণিজ্যিক কার্যক্রম বাড়বে।

কমিটি সূত্র জানায়, বর্তমান সরকারের উন্নয়ন ধারাবাহিকতার অংশ হিসেবে চিলমারী বন্দরটি সচল করার উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। ২০১৬ সালের ৭ সেপ্টেম্বর প্রধানমন্ত্রী চিলমারী সফরে গিয়ে চিলমারীকে নৌবন্দর হিসেবে ঘোষণা দেন। পরে ২০১৭ সালের ১৮ এপ্রিল বাংলাদেশ ও ভুটানের মধ্যে নৌ বাণিজ্য চালুর জন্য সমঝোতা স্মারক (এমওইউ) স্বাক্ষর হয়। আর ভুটান ল্যান্ডলক দেশ হওয়ায় ইউএন কনভেনশন অন ট্রানজিট ট্রেড অব ল্যান্ডলক স্ট্রেট-১৯৬৫-এর সুবিধাদি প্রদানের লক্ষ্যে ২০১৯ সালের ১৪ এপ্রিল দুই দেশের মধ্যে বাণিজ্যিক এসওপি স্বাক্ষরিত হয়। কিন্তু চিলমারী বন্দরে পণ্য ওঠানো-নামানোর কোনো ব্যবস্থা না থাকায় সেই কার্যক্রমটি আপাতত জামালপুরের বাহাদুরাবাদ ও মানিকগঞ্জের আরিচা পয়েন্টে সম্পন্ন করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আর চিলমারী বন্দরে শুল্কায়নের কার্যক্রম দ্রুত শুরুর জন্য নৌপরিবহন মন্ত্রণালয় থেকে গত ২৫ আগস্ট এনবিআরকে চিঠি দেওয়া হয়েছে।

সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা জানান, ভুটানের পণ্যসামগ্রী আমদানি সহজ করতে চিলমারী বন্দরের পাশের কোনো শুল্ক স্টেশন (কুড়িগ্রাম শুল্ক স্টেশন) থেকে কেস টু কেস শুল্কায়নের ব্যবস্থা গ্রহণ করা হতে পারে। এ ছাড়া পণ্যবাহী নৌযান চলাচল সহজ করতে নদীর গভীরতা বাড়াতে ড্রেজিং কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়েছে। একই সঙ্গে অবকাঠামোগত সুযোগ-সুবিধা বাড়ানোর উদ্যোগও নেওয়া হয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা