kalerkantho

সোমবার । ১১ ফাল্গুন ১৪২৬ । ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০। ২৯ জমাদিউস সানি ১৪৪১

চট্টগ্রামে জরিমানা করায় হঠাৎ বাস বন্ধ, পাঁচ ঘণ্টা ভোগান্তি

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা ও চট্টগ্রাম   

৫ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বাড়তি ভাড়া নেওয়ার অভিযোগে ভ্রাম্যমাণ আদালত জরিমানা করায় গতকাল রবিবার বিকেল ৫টার দিকে হঠাৎ করেই বাস চলাচল বন্ধ করে দেয় চট্টগ্রামের বাস মালিক ও শ্রমিকরা। এরপর রাত ৮টায় সংবাদ সম্মেলন করে ধর্মঘটের আনুষ্ঠানিক ঘোষণা দেন। চট্টগ্রাম থেকে রাজধানী ঢাকাসহ ৬৮ রুটে এ ধর্মঘট ডাকা হয়। এরপর রাত সাড়ে ৯টায় জেলা প্রশাসকের সঙ্গে বৈঠক করে ১০টায় ধর্মঘট প্রত্যাহারের ঘোষণা দেয় তারা। এই পাঁচ ঘণ্টা নগরের বিভিন্ন কাউন্টারে ও কাউন্টারের সামনে যাত্রীদের অপেক্ষা করতে দেখা গেছে।

আন্তজেলা বাস মালিক সমিতি ও পূর্বাঞ্চলীয় সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশন যৌথভাবে এ ধর্মঘট ডেকেছিল।

পূর্বাঞ্চলীয় সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের সভাপতি মৃণাল চৌধুরী বলেন, আন্তজেলা রুটে প্রতি কিলোমিটার এক টাকা ৪২ পয়সা করে সরকারিভাবে ভাড়া নির্ধারিত আছে। গত ঈদুল ফিতরের সময় অনেক বাস কম্পানি সরকারি নির্ধারিত ভাড়ার চেয়ে কম টাকায় যাত্রী পরিবহন করেছে। কিন্তু ঈদের পরে আবারও আগের মতো সরকারি নিয়মে ভাড়া আদায় শুরু হয়। এখন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ওই কম ভাড়াকে সরকারি ভাড়া ধরে গণহারে জরিমানা করা শুরু করে দিয়েছেন।

গতরাতে বাংলাদেশ সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশনের চট্টগ্রাম আঞ্চলিক শাখার সাধারণ সম্পাদক অলি আহমদ কালের কণ্ঠকে বলেন, রাত সাড়ে ৯টায় চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মো. ইলিয়াস হোসেনের সঙ্গে তাঁর বাসভবনে আন্তজেলা বাস মালিক ও শ্রমিক নেতারা বৈঠকে বসেন। রাত ১০টায় বৈঠক শেষ হয়। এরপর বাস মালিকরা ধর্মঘট প্রত্যাহার করে নেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা