kalerkantho

মঙ্গলবার । ১৫ অক্টোবর ২০১৯। ৩০ আশ্বিন ১৪২৬। ১৫ সফর ১৪৪১       

গৌরনদীতে কালী প্রতিমা ভাঙচুর করেছে দুর্বৃত্তরা

গৌরনদী (বরিশাল) প্রতিনিধি   

৪ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বরিশালের গৌরনদী উপজেলার সাঁকোকাঠি গ্রামের নিতাই চন্দ্র দাসের বাড়ির সর্বজনীন কালী মন্দিরের প্রতিমা ভাঙচুর করে গত শুক্রবার গভীর রাতে পাশের খালে ফেলে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা।

নিতাই চন্দ্র দাস জানান, প্রতিদিনের মতো গত শুক্রবার সন্ধ্যায় তিনি ও তাঁর স্ত্রী কল্পনা রানী দাস পূজা দিয়ে মন্দির বন্ধ করেন। গতকাল শনিবার সকাল ৬টায় পূজা দিতে গিয়ে কল্পনা দেখেন, মূর্তির কিছু ভাঙা টুকরো মন্দিরের ভেতর পড়ে আছে। এরপর তিনি স্বামী নিতাইকে ডেকে আনেন এবং পরে নিতাই স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) সদস্য মো. আফজাল হোসেন মোল্লাকে ডেকে পরিস্থিতি দেখান। নিতাই ও আফজাল ঘটনাটি প্রশাসনকে জানালে গতকাল দুপুর ১২টায় উপজেলা ও থানা প্রশাসনের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। 

ভারপ্রাপ্ত উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ফারিহা তানজিন বলেন, ‘বাড়ির মধ্যে খোলা জায়গায় বসানো মন্দিরের মূর্তিটি অনেকটা অরক্ষিতই ছিল। রাতের আঁধারে কে বা কারা এ ঘটনা ঘটিয়েছে, তা এখনো শনাক্ত হয়নি। হিন্দু-মুসলিম উভয় সম্প্রদায়ের লোকেরা মিলেমিশে এখন সেখানে পাহারা বসিয়েছে।’

গৌরনদী মডেল থানার পরিদর্শক মো. গোলাম সরোয়ার জানান, নিতাই চন্দ্র দাস বাদী হয়ে অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তিদের আসামি করে গতকাল দুপুরে থানায় মামলা করেছেন।

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা