kalerkantho

রবিবার । ১৫ ডিসেম্বর ২০১৯। ৩০ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১৭ রবিউস সানি                    

‘অভিধান থেকে মুছে যাক ধর্ষণ শব্দটি’

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি   

১২ জুলাই, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



দেশে ক্রমবর্ধমান ধর্ষণের ঘটনায় উদ্বেগ জানিয়েছেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা। একই সঙ্গে ধর্ষণে অভিযুক্তদের দ্রুত বিচারের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির জন্য প্রশাসনের কাছে দাবি জানিয়েছেন।

‘অভিধান থেকে ধর্ষণ শব্দটি মুছে যাক’ প্রতিপাদ্যে গতকাল বৃহস্পতিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের উদ্যোগে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর একাডেমিক ভবনের সামনে মানববন্ধনে এ দাবি জানানো হয়। এতে বিভাগের অধ্যাপক প্রদীপ কুমার পাণ্ডে বলেন, ধর্ষণ বর্তমানে সামাজিক ব্যাধিতে পরিণত হয়েছে। তবে এ অবস্থা এক দিনে তৈরি হয়নি। দীর্ঘদিন থেকে চলে আসা বিচারহীনতার সংস্কৃতিই এর জন্য দায়ী। অপরাধীদের শাস্তি দ্রুত নিশ্চিত করা গেলে মানুষের এতটা নৈতিক অবক্ষয় হতো না। তিনি বলেন, ধর্ষণ বন্ধের জন্য শুধু পুলিশ-প্রশাসন কিংবা রাষ্ট্রের ওপর দায় চাপালেই চলবে না। অপরাধীদের মধ্যে যে পশুত্ব রয়েছে তা ধ্বংস করতে হবে, ধর্ষণের বিরুদ্ধে সামাজিক আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে।

বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থী আলী ইউনুস হৃদয়ের সঞ্চালনায় কর্মসূচিতে আরো বক্তব্য দেন বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক মশিহুর রহমান, মাস্টার্সের শিক্ষার্থী মোল্লা মো. সাঈদ প্রমুখ। বিভাগের শিক্ষক সাজ্জাদ বকুল, নাজিয়াত হোসেন চৌধুরী, মাহাবুর রহমান, দিল আফরোজা খাতুন, আমেনা খাতুনসহ বিভিন্ন বর্ষের দেড় শতাধিক শিক্ষার্থী উপস্থিত ছিলেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা