kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ২৩ মে ২০১৯। ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬। ১৭ রমজান ১৪৪০

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের মাধ্যমে ডিটিএইচ সেবা

‘রিয়েল ভিউ’-এর বদলে আসছে ‘আকাশ’

আজ উদ্বোধন

কাজী হাফিজ   

১৬ মে, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



‘রিয়েল ভিউ’-এর বদলে এবার আসছে ‘আকাশ’। বেক্সিমকো কমিউনিকেশনস লিমিটেড আকাশ নামেই এবার দেশে ডিরেক্ট টু হোম (ডিটিএইচ) সেবা চালু করতে যাচ্ছে। দেশের প্রথম এবং একমাত্র কৃত্রিম যোগাযোগ ও সম্প্রচার উপগ্রহ ‘বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১’-এর মাধ্যমে এই সেবা দেওয়া হবে। আজ বৃহস্পতিবার রাজধানীর একটি হোটেলে এই সেবার উদ্বোধন হতে যাচ্ছে।

বেক্সিমকো কমিউনিকেশনস লিমিটেডের হেড অব টেকনোলজি আনোয়ার আজিম এ বিষয়ে গতকাল বুধবার বিকেলে কালের কণ্ঠকে বলেন, “আমাদের রিয়েল ভিউয়ের সেবা বিভিন্ন কারণে ডিসকন্টিনিউ হয়েছে। রিয়েল ভিউয়ের বদলে এবার ‘আকাশ ডিটিএইচ’ আসছে।”

এর আগে ২০১৬ সালের ১০ মার্চ বেক্সিমকো কমিউনিকেশনসের পক্ষ থেকে এক সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, কেবলের মাধ্যমে বিভিন্ন টিভি চ্যানেল দেখার বিপরীতে শিগগিরই দেশে প্রথম ডিটিএইচ সেবা ‘রিয়েল ভিউ’ চালু করতে সব প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে। বেক্সিমকো ও রাশিয়াভিত্তিক কম্পানি জিএস গ্রুপের একটি যৌথ উদ্যোগ হিসেবে এই সেবা পরিচালিত হবে। প্রথমে ঢাকা, চট্টগ্রাম ও সিলেটে এই সেবা চালু হবে। এই প্রযুক্তিতে স্যাটেলাইট থেকে সরাসরি টেলিভিশন সিগন্যাল গ্রহণের মাধ্যমে গ্রাহকরা বিভিন্ন চ্যানেল দেখতে পারবে। এর মাধ্যমে টিভি দেখার বিশ্বের সর্বাধুনিক সুবিধা ও প্রযুক্তি দেশে চালু হতে যাচ্ছে।  বাংলাদেশের টিভি দর্শকদের টিভি দেখার অভিজ্ঞতায় আমূল পরিবর্তন আনবে এই সেবা। এবিএস স্যাটেলাইট বিমের প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে শুরুতে মেট্রোপলিটন এলাকাগুলোতে এই সেবা প্রদান করা হবে এবং ধীরে ধীরে সারা দেশের মানুষই এই সেবা গ্রহণ করতে পারবেন।

ওই সংবাদ সম্মেলনে আরো বলা হয়, রিয়েল ভিউয়ের ছবি অ্যানালগ কেবল টিভির ছবির চেয়ে অনেক গুণ ভালো হবে। মাসে ৩০০ টাকায় গ্রাহক ২৬টির বেশি বাংলা চ্যানেলসহ শতাধিক চ্যানেল দেখতে পারবে। ডিটিএইচ সেবার মাধ্যমে গ্রাহক সরাসরি স্যাটেলাইট থেকে বাসায় স্থাপিত ডিজিটাল সেট টপ বক্সের মাধ্যমে টিভি সিগন্যাল গ্রহণ করতে পারবে।

কিন্তু এই সেবা সেভাবে বিস্তার লাভ করেনি। তা ছাড়া ডিটিএইচ লাইসেন্সের শর্ত অনুসারে এই সেবার ক্ষেত্রে দেশের নিজস্ব স্যাটেলাইটের ব্যবহার বাধ্যতামূলক। গত বছরের ২৭ সেপ্টেম্বর বেক্সিমকো কমিউনিকেশনস টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিটিআরসিকে জানিয়ে দেয়, বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের মাধ্যমে ডিটিএইচ সেবা দেওয়ার লক্ষ্যে তাদের আর্থ স্টেশন/আপলিংক সেন্টারের টেকনিক্যাল আপগ্রেডেশনের জন্য ৩০ সেপ্টেম্বর (২০১৮ সাল) থেকে সেবা বন্ধ থাকবে।

সরকার ২০১৩ সালের ডিসেম্বর মাসে বেক্সিমকো কমিউনিকেশনস লিমিটেডকে দেশে ডিটিএইচ সেবার লাইসেন্স দেয়। পরে বায়ার মিডিয়া লিমিটেড নামের আরেকটি প্রতিষ্ঠানকেও একই লাইসেন্স দেওয়া হয়।

মন্তব্য