kalerkantho

শুক্রবার । ১৫ নভেম্বর ২০১৯। ৩০ কার্তিক ১৪২৬। ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

যুবকের গলাকাটা লাশ

পরকীয়ার কারণে খুন, গ্রেপ্তার ৬

সোনারগাঁ (নারায়ণগঞ্জ) প্রতিনিধি    

৪ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁয় আমিনুল ইসলাম কালু নামের এক যুবকের গলাকাটা লাশ উদ্ধারের ঘটনায় স্ত্রীসহ ছয়জনকে আটক করেছে পুলিশ। গত শনিবার সকালে উপজেলার ব্রহ্মপুত্র নদের তীরে কাফুরদী এলাকা থেকে লাশটি উদ্ধার করেছিল সোনারগাঁ থানা পুলিশ।

জানা গেছে, সিদ্ধিরগঞ্জের এনায়েত নগরের বাসিন্দা মৃত আজত আলীর ছেলে আমিরুল ইসলাম কালুর স্ত্রী রিক্তা তার বাড়িতে ব্যাচেলরদের মেসে রান্না করত। এর মধ্যে রেজাউল করিম পলাশ নামে একজনের সঙ্গে রিক্তার অনৈতিক সম্পর্ক গড়ে ওঠে। বিষয়টি রিক্তার স্বামী কালু হাতেনাতে ধরে ফেলে। এ নিয়ে কালুর সঙ্গে বিবাদ হয় রিক্তা ও পলাশের। এর জের ধরে গত শুক্রবার রাতে পলাশ ও তার সহযোগীরা কালুকে অপহরণের পর গলাকেটে হত্যা করে। পরে তারা সোনারগাঁর ব্রহ্মপুত্র নদের পাশে কাফুরদী এলাকায় লাশ ফেলে পালিয়ে যায়।

এদিকে সোনারগাঁ থানা পুলিশ গত শনিবার রাতেই অভিযান চালিয়ে হত্যার ঘটনায় স্ত্রী রিক্তা বেগম ও পলাশকে গ্রেপ্তার করে। এ সময় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আরো চারজনকে আটক করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

এর আগে গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদের প্রেক্ষিতে গত শনিবার আমিনুল ইসলাম কালুর ভাই সামছুল হক লাশটি শনাক্তের পর থানায় মামলা করেন।

সোনারগাঁ থানার পরিদর্শক (অপারেশন) আলমগীর হোসেন জানান, হত্যার ঘটনায় তদন্ত চলছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা