kalerkantho

বুধবার । ২৩ অক্টোবর ২০১৯। ৭ কাতির্ক ১৪২৬। ২৩ সফর ১৪৪১                 

এরশাদকে ভুল করে ক্যান্সারের চিকিৎসা দেওয়া হয় : রাঙ্গা

রংপুর অফিস   

৪ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



জাতীয় পার্টির মহাসচিব ও সংসদের বিরোধীদলীয় চিফ হুইপ মসিউর রহমান রাঙ্গা অভিযোগ করেছেন, দলের চেয়ারম্যান ও সংসদে বিরোধী দলীয় নেতা এইচ এম এরশাদ ভুল চিকিৎসার শিকার হয়ে অসুস্থ হয়ে পড়েছিলেন। ভুল করে তাঁকে ক্যান্সারের চিকিৎসা দেওয়া হয়েছিল। ফলে তাঁর লিভার ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার পাশাপাশি রক্তের হিমোগ্লোবিন কমে গিয়েছিল।

গতকাল রবিবার দুপুরে এরশাদের সফরসঙ্গী হিসেবে রংপুরে এসে মসিউর রহমান রাঙ্গা সাংবাদিকদের কাছে এই অভিযোগ করেন। জাতীয় নির্বাচনে সংসদ সদস্য নির্বাচিত হওয়ার পর এই প্রথম রংপুরে আসেন এইচ এম এরশাদ। চার দিনের সফরের প্রথম দিনে গতকাল তিনি কোনো কথা বলেননি কিংবা বক্তব্য দেননি।

গতকাল দুপুরে হেলিকপ্টারযোগে রংপুর সেনানিবাসে অবতরণ করেন এইচ এম এরশাদ ও তাঁর সফরসঙ্গীরা। তিনি নগরের গ্র্যান্ড প্যালেস হোটেলে ওঠেন। সেখানে জাপা নেতাকর্মীরা তাঁকে ফুলেল শুভেচ্ছায় সিক্ত করে। এ সময় তিনি হুইল চেয়ারে করে চলাফেরা করেন। তিনি উপস্থিত সাংবাদিক ও জাপা নেতাকর্মীদের সঙ্গে কোনো কথা না বলে হোটেলে তাঁর নির্ধারিত কক্ষে চলে যান।

এ সময় জাপা মহাসচিব মসিউর রহমান রাঙ্গা সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন। তিনি অভিযোগ করে বলেন, জাপা চেয়ারম্যান এরশাদ ভুল চিকিৎসার কারণে গুরুতর অসুস্থ হয়েছেন। তাঁর ভুল ডায়াগনসিস করা হয়েছে। ডায়াগনসিসের রিপোর্টে ক্যান্সারের কথা উল্লেখ করা হয়। সেই মতে তাঁকে ক্যান্সারের চিকিৎসা দেওয়া হয়। ভুল ওষুধ প্রয়োগের ফলে তাঁর স্বাস্থের অবনতি ঘটে। লিভার ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার ফলে তিনি গুরুতর অসুস্থ হয়ে পড়েন। হাঁটাচলা করতে পারতেন না। পরবর্তী সময়ে তাঁকে সিঙ্গাপুরে নেওয়া হলে ভুল চিকিৎসার বিষয়টি ধরা পড়ে। সিঙ্গাপুরে চিকিৎসা নেওয়ার পর তিনি এখন অনেকটা সুস্থ। হুইল চেয়ার ছাড়াও চলাফেরা করতে পারেন। রাঙ্গা বলেন, ‘রংপুর তথা দেশবাসীর দোয়ায় এরশাদ দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠবেন বলে আশা করি।’ জাপা মহাসচিব বলেন, দলের চেয়ারম্যান দেশে ফেরার পর রংপুরে আসার আগ্রহ প্রকাশ করেছিলেন। তাই তিনি রংপুরে এসেছেন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা