kalerkantho

শনিবার । ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১৬ রবিউস সানি               

বকেয়ার দাবিতে রূপগঞ্জে গার্মেন্টে শ্রমিক অসন্তোষ

রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) প্রতিনিধি   

১৭ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বকেয়া বেতন-ভাতার দাবিতে নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে রপ্তানিমুখী একটি পোশাক কারখানায় শ্রমিক অসন্তোষ দেখা দিয়েছে। মালিকপক্ষ বেতন-ভাতা পরিশোধ না করেই কারখানা বন্ধ ঘোষণা করায় শ্রমিকরা কারখানার সামনে দফায় দফায় বিক্ষোভ মিছিল করেছে।

গতকাল বুধবার সকালে উপজেলার বরপা এলাকার অন্তিম নিটিং ডায়িং অ্যান্ড ফিনিশিং ও নিট কম্পোজিট নামের পোশাক কারখানার শ্রমিকদের মাঝে এই অসন্তোষ দেখা দেয়। শ্রমিকরা অভিযোগ করে, এ দুটি কারখানায় প্রায় ১০ হাজার শ্রমিক কাজ করে। প্রতি মাসের ১০ তারিখের মধ্যে সব সেকশনে বেতন-ভাতা পরিশোধের কথা থাকলেও কারখানার মালিকপক্ষ তা পরিশোধ করছে না।

কারখানার স্টাফদের চার মাস ও শ্রমিকদের দুই মাসের বেতন-ভাতা বকেয়া রয়েছে বলে দাবি আন্দোলনকারীদের। এ মাসের ১০ তারিখ পার হয়ে গেলেও মালিকপক্ষ বেতন-ভাতা পরিশোধ করেনি। গতকাল বেতন-ভাতা পরিশোধের আশ্বাস দিয়েছিল মালিকপক্ষ। শ্রমিকরা সকালে এসে দেখতে পায়, কোনো নোটিশ বা বেতন-ভাতা পরিশোধ ছাড়াই কারখানার গেটে তালা ঝুলিয়ে দিয়েছে মালিকপক্ষ। এরপর মালিকপক্ষের সঙ্গে বারবার যোগাযোগের চেষ্টা করেও কাউকে পায়নি শ্রমিকরা। পরে বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা কারখানার সামনে অবস্থান নিয়ে দফায় দফায় বিক্ষোভ মিছিল করে। একপর্যায়ে উত্তেজিত শ্রমিকরা ঢাকা-সিলেট মহাসড়ক অবরোধের চেষ্টা করলে পুলিশ কর্মকর্তারা তাদের বুঝিয়ে নিবৃত্ত করেন।

কারখানার প্রশাসনিক কর্মকর্তা দেলোয়ার হোসেন বলেন, কারখানার শ্রমিক-কর্মকর্তাসহ মোট বেতন প্রায় আট কোটি টাকা। তবে নতুন মজুরি স্কেলে সর্বমোট বেতন দাঁড়ায় প্রায় ১২ কোটি টাকা। বাড়তি টাকার ব্যবস্থা করতে কারখানার মালিকপক্ষ হিমশিম খাচ্ছে। ফলে শ্রমিকদের বেতন-ভাতা পরিশোধ করতে দেরি  হচ্ছে। এক সপ্তাহের মধ্যে বেতন-ভাতা পরিশোধ করা হবে।

রূপগঞ্জ থানার ওসি মুহাম্মদ আব্দুল হক জানান, ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা