kalerkantho

সোমবার । ১৩ আশ্বিন ১৪২৭ । ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০। ১০ সফর ১৪৪২

তদন্ত প্রতিবেদন ১৭ ফেব্রুয়ারি

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৭ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



তদন্ত প্রতিবেদন ১৭ ফেব্রুয়ারি

মুক্তমনা ব্লগের প্রতিষ্ঠাতা ও বিজ্ঞানমনস্ক লেখক অভিজিৎ হত্যা মামলার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের জন্য আগামী ১৭ ফেব্রুয়ারি দিন ধার্য করা হয়েছে। গতকাল বুধবার ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট সরাফুজ্জামান আনসারী এ তারিখ ধার্য করেন।

গতকাল এই মামলার তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের দিন ধার্য ছিল। কিন্তু তদন্তকারী কর্মকর্তা পুলিশের কাউন্টার টেররিজম ইউনিটের ওসি মনিরুল ইসলাম প্রতিবেদন দাখিল করতে না পারায় নতুন তারিখ ধার্য করা হয়।

২০১৫ সালের ২৬ ফেব্রুয়ারি বইমেলা থেকে বের হওয়ার পর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক মিলনায়তনের (টিএসসি) সামনের রাস্তায় দুষ্কৃতকারীরা অভিজিৎ রায়কে কুপিয়ে হত্যা করে। এ ঘটনায় অভিজিতের স্ত্রী রাফিদা আহমেদ আহত হন।

ঘটনার পর অভিজিতের বাবা অধ্যাপক অজয় রায় বাদী হয়ে শাহবাগ থানায় হত্যা মামলা করেন। ঘটনার পর আল কায়েদার পক্ষে ‘সাইট ইন্টেলিজেন্স গ্রুপ’ এর দায় স্বীকার করে।

দীর্ঘদিন তদন্তাধীন এই মামলায় গত নভেম্বরে গ্রেপ্তার আনসার আল ইসলামের ইন্টেলিজেন্স গ্রুপের সদস্য আবু সিদ্দিক ওরফে সোহেল ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। ওই জবানবন্দিতে বলা হয়, সেনাবাহিনী থেকে চাকরিচ্যুত মেজর জিয়ার নির্দেশে আট জঙ্গি অভিজিেক হত্যা করে। এ মামলায় আবু সিদ্দিক ওরফে সোহেল ছাড়াও আরো গ্রেপ্তার করা হয় নিষিদ্ধ জঙ্গি সংগঠন আনসার আল ইসলামের অপারেশন শাখার সদস্য মো. আরাফাত রহমান ওরফে সিয়াম ওরফে সাজ্জাদ, আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের অপারেশন শাখার সদস্য সবুর ওরফে রাজু ওরফে সাদ, সদস্য জাফরান হাসান, শফিউর রহমান ফারাবী, তৌহিদুর রহমান, সাদেক আলী, আমিনুল ইসলাম ও মান্না ইয়াহি ওরফে রাহীকে। তারা সবাই কারাগারে রয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা