kalerkantho

স্বাস্থ্য পরীক্ষার ফি টাঙানো

নির্দেশের অগ্রগতি জানতে চেয়েছেন হাইকোর্ট

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১১ জানুয়ারি, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বেসরকারি হাসপাতাল ও ডায়াগনস্টিক সেন্টারে স্বাস্থ্য পরীক্ষাসহ বিভিন্ন সেবার মূল্যতালিকা টাঙানোর নির্দেশ কতটুকু বাস্তবায়ন হয়েছে, সে বিষয়ে সরকারকে অগ্রগতি প্রতিবেদন দাখিল করতে বলেছেন হাইকোর্ট। ১৫ জানুয়ারির মধ্যে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়কে এ প্রতিবেদন দাখিল করতে হবে।

বিচারপতি জে বি এম হাসান ও বিচারপতি মো. খায়রুল আলমের হাইকোর্ট বেঞ্চ গতকাল বৃহস্পতিবার এ আদেশ দেন।

গত জুলাইয়ে ‘হিউম্যান রাইটস লইয়ার্স অ্যান্ড সিকিউরিং এনভায়রনমেন্ট সোসাইটি অব বাংলাদেশ’ নামের একটি সংগঠনের কোষাধ্যক্ষ একটি রিট আবেদন করেন। ওই রিটের পরিপ্রেক্ষিতে ১৫ দিনের মধ্যে দেশের সব বেসরকারি হাসপাতাল, ক্লিনিক, ডায়াগনস্টিক সেন্টার ও ল্যাবরেটরিতে সেবার মূল্যতালিকা প্রকাশ্যে টাঙানোর নির্দেশ দেন হাইকোর্ট। একই সঙ্গে এই আদেশের দুই মাসের মধ্যে ‘মেডিক্যাল প্র্যাকটিস অ্যান্ড প্রাইভেট ক্লিনিকস অ্যান্ড ল্যাবরেটরিস (রেগুলেশন) অর্ডিন্যান্স-১৯৮২’ অনুযায়ী নীতিমালা তৈরি এবং তা বাস্তবায়নে একটি বিশেষজ্ঞ কমিটি গঠনের নির্দেশও দেন। স্বাস্থ্যসচিব, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক এবং বাংলাদেশ মেডিক্যাল অ্যান্ড ডেন্টাল কাউন্সিলকে (বিএমডিসি) এ আদেশ বাস্তবায়নের নির্দেশ দেওয়া হয়। এ আদেশ কতটুকু বাস্তবায়ন হয়েছে সে বিষয়ে ৯ জানুয়ারির মধ্যে প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশনা ছিল। কিন্তু সরকারসহ সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিরা কোনো জবাব না দেওয়ায় আদালত ১৫ জানুয়ারির মধ্যে প্রতিবেদন দাখিলের জন্য সময় বেঁধে দিলেন।

মন্তব্য