kalerkantho

বুধবার । ২০ নভেম্বর ২০১৯। ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ২২ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

৭৪ প্রার্থীর হাতে সিপিবির কাস্তে

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৯ ডিসেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



৭৪ প্রার্থীর হাতে সিপিবির কাস্তে

মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই ও প্রত্যাহার শেষে বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির (সিপিবি) নির্বাচনী প্রতীক কাস্তে নিয়ে ৭৪ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন। এর মধ্যে সিপিবির ৭২ জন এবং বাম গণতান্ত্রিক জোটের শরিক অন্য দলের দুজন প্রার্থী রয়েছেন। গতকাল শনিবার দুপুরে রাজধানীর মুক্তি ভবনের মৈত্রী মিলনায়তনে এক সংবাদ সম্মেলনে চূড়ান্ত প্রার্থী তালিকা ঘোষণা করেন সিপিবির সভাপতি মুজাহিদুল ইসলাম সেলিম।

এ সময় সিপিবি সভাপতি বলেন, জাতীয় সংসদ নির্বাচন শুধু আনুষ্ঠানিকতা নয়। এই নির্বাচনের অন্যতম তাৎপর্য হলো, দেশ আগামী দিনে কিভাবে চলবে, এটা জনগণের কাছে তুলে ধরে তাদের কাছ থেকে ম্যান্ডেট নেওয়া। কিন্তু বুর্জোয়া দলগুলো তা করছে না। তিনি আরো বলেন, “নৌকা ও ধানের শীষ লুটপাটের চলতি সিস্টেম বহাল রাখতে চায়। তারা দেশের এক ভাগ মানুষের স্বার্থ রক্ষাকারী। আর আমরা বাম জোট ৯৯ ভাগ মানুষের স্বার্থ রক্ষাকারী। এই ৯৯ ভাগ মানুষের স্বার্থ রক্ষায় আমরা আগামী সংসদ নির্বাচন সামনে রেখে ‘ভিশন মুক্তিযুদ্ধ-৭১’ নামে ইশতেহার প্রকাশ করেছি।” জনগণ এই ইশতেহারের পক্ষে রায় দেবে বলে তিনি আশা প্রকাশ করেন।

সিপিবির প্রার্থীরা হলেন পঞ্চগড়-২ আশরাফুল আলম, ঠাকুরগাঁও-৩ প্রভাত সমীর শাজাহান আলম, দিনাজপুর-৩ বদিউজ্জামান বাদল, দিনাজপুর-৪ রিয়াজুল ইসলাম রাজু, রংপুর-৬ অধ্যাপক কামরুজ্জামান, কুড়িগ্রাম-২ উপেন্দ্রনাথ, কুড়িগ্রাম-৩ দেলোয়ার হোসেন, গাইবান্ধা-২ মিহির ঘোষ, গাইবান্ধা-৫ যজ্ঞেশ্বর বর্মণ, বগুড়া-৫ সন্তোষ পাল, বগুড়া-৬ আমিনুল ফরিদ, নওগাঁ-৪ ডা. ফজলুর রহমান, রাজশাহী-২ এনামুল হক, সিরাজগঞ্জ-৩ মোস্তফা নূরুল আমিন, কুষ্টিয়া-২ অধ্যাপক অহিদুজ্জামান পিন্টু, বাগেরহাট-২ খান সেকেন্দার আলী, বাগেরহাট-৪ শরিফুজ্জামান শরিফ, খুলনা-১ অশোক সরকার, খুলনা-২ এইচ এম শাহাদাৎ, খুলনা-৫ চিত্ত গোলদার, খুলনা-৬ সুভাষ সানা মহিম, পটুয়াখালী-১ মোতালেব মোল্লা, পটুয়াখালী-২ শাহাবুদ্দিন মাস্টার, ভোলা-১ অ্যাডভোকেট সোহেল আহমেদ, পিরোজপুর-১ ডা. তপন বসু, পিরোজপুর-২ হাজী হামিদ, পিরোজপুর-৩ দিলীপ পাইক, টাঙ্গাইল-২ জাহিদ হোসেন খান, জামালপুর-২ মনজুরুল আহসান খান, জামালপুর-৩ শিবলুল বারী রাজু, জামালপুর-৫ আলী আক্কাস, শেরপুর-১ আফিল শেখ, ময়মনসিংহ-৩ হারুন-আল বারী, ময়মনসিংহ-৪ অ্যাডভোকেট এমদাদুল হক মিল্লাত, নেত্রকোনা-১ ডা. দিবালোক সিংহ, নেত্রকোনা-২ মোশতাক আহমেদ, নেত্রকোনা-৩ অধ্যক্ষ আনোয়ার হোসেন, নেত্রকোনা-৪ জলি তালুকদার, কিশোরগঞ্জ-১ অ্যাডভোকেট এনামুল হক, কিশোরগঞ্জ-২ নূরুল ইসলাম, কিশোরগঞ্জ-৩ ডা. এনামুল হক ইদ্রিস, কিশোরগঞ্জ-৫ অধ্যক্ষ ফরিদ আহমেদ, মুন্সীগঞ্জ-১ সমর দত্ত, মুন্সীগঞ্জ-৩ শ ম কামাল হোসেন, ঢাকা-১ আবিদ হোসেন, ঢাকা-২ সুকান্ত শফী চৌধুরী কমল, ঢাকা-৬ আবু তাহের বকুল, ঢাকা-১৩ আহসান হাবিব লাবলু, ঢাকা-১৪ রিয়াজউদ্দিন, ঢাকা-১৫ ডা. সাজেদুল হক রুবেল, গাজীপুর-২ জিয়াউল কবীর খোকন, গাজীপুর-৪ মানবেন্দ্র দেব, নরসিংদী-৪ কাজী সাজ্জাদ জহির চন্দন, নারায়ণগঞ্জ-১ মো. মনিরুজ্জামান চন্দন, নারায়ণগঞ্জ-২ হাফিজুল ইসলাম, নারায়ণগঞ্জ-৩ আব্দুস সালাম বাবুল, নারায়ণগঞ্জ-৪ ইকবাল হোসেন, নারায়ণগঞ্জ-৫ অ্যাডভোকেট মন্টু ঘোষ, ফরিদপুর-৩ রফিকুজ্জামান লায়েক, ফরিদপুর-৪ আতাউর রহমান কালু, শরীয়তপুর-৩ সুশান্ত ভাওয়াল, সুনামগঞ্জ-২ নিরঞ্জন দাশ খোকন, হবিগঞ্জ-৩ পীযূষ চক্রবর্তী, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ ঈশা খান, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৩ শাহরিয়ার মো. ফিরোজ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৫ শাহীন খান, ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৬ অ্যাডভোকেট সৈয়দ মোহাম্মদ জামাল, কুমিল্লা-৫ আবদুল্লাহ ক্বাফী রতন, নোয়াখালী-৩ মজিবুল হক, চট্টগ্রাম-৮ সেহাব উদ্দিন সাইফু, চট্টগ্রাম-৯ মৃণাল চৌধুরী এবং চট্টগ্রাম-১৪ আব্দুল নবী। এ ছাড়া কাস্তে মার্কার অন্য দুই প্রার্থী হলেন সাতক্ষীরা-১ আজিজুর রহমান ও শরীয়তপুর-১ আসনে মোদ্দাসের হোসেন বাবুল।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা