kalerkantho

শনিবার  । ১৯ অক্টোবর ২০১৯। ৩ কাতির্ক ১৪২৬। ১৯ সফর ১৪৪১         

সেনাবাহিনীকে ইভিএমের প্রশিক্ষণ দেবে ইসি

সশস্ত্র বাহিনী বিভাগকে চিঠি

বিশেষ প্রতিনিধি   

১৪ নভেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) ব্যবহারের লক্ষ্যে সশস্ত্র বাহিনীর সদস্যদের প্রশিক্ষণ দেবে নির্বাচন কমিশন (ইসি)। সশস্ত্র বাহিনীর ৬৪ জন কর্মকর্তা, ২১০ জন জুনিয়র কমিশনড অফিসারসহ (জেসিও) অন্য সদস্যদের ইভিএম বিষয়ক প্রশিক্ষণের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়ার অনুরোধ জানিয়ে সশস্ত্র বাহিনী বিভাগকে গতকাল মঙ্গলবার চিঠি দিয়েছে ইসি।

চিঠিতে বলা হয়, সংসদ নির্বাচনে সীমিত পরিসরে ইভিএম ব্যবহারের পরিকল্পনা রয়েছে ইসির। এ জন্য ইসির কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হচ্ছে। কিন্তু ইসির যে জনবল রয়েছে, তা অপ্রতুল। এই জনবল দিয়ে স্বল্প সময়ে ইভিএমে ভোট দেওয়ার জন্য জনগণকে প্রশিক্ষণ দেওয়া ও সারা দেশে প্রচার চালানো প্রায় অসম্ভব। এ জন্য সশস্ত্র বাহিনীর প্রতিটি ডিভিশন/অঞ্চল/ঘাঁটির প্রয়োজনীয়সংখ্যক কর্মকর্তাকে তিন দিন করে প্রশিক্ষণ দেওয়ার পরিকল্পনা করেছে ইসি। পরে তাঁরা নিজ নিজ ডিভিশন বা অঞ্চলের প্রয়োজনীয়সংখ্যক কর্মকর্তাকে প্রশিক্ষণ দেবেন। তা ছাড়া ইসির মাঠ কর্মকর্তাদের সঙ্গে সমন্বয় করে জনগণকে প্রশিক্ষণ দেবেন ও জনসচেতনা তৈরিতে কাজ করবেন।

তবে প্রশিক্ষণের সময়সূচি এখনো চূড়ান্ত করা হয়নি।

এর আগে গত শনিবার ইসি সচিব হেলালুদ্দীন আহমেদ সাংবাদিকদের জানান, আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে সশস্ত্র বাহিনীর কারিগরি সহায়তা ও নিরাপত্তাব্যবস্থার মাধ্যমে ইভিএম ব্যবহার করা হতে পারে। এ ধরনের পরিকল্পনা নিয়েই এগোচ্ছে নির্বাচন কমিশন।

ওই দিন ইসি সচিব আরো বলেন, ‘আমাদের পরিকল্পনা রয়েছে যেসব কেন্দ্রে ইভিএম ব্যবহার করা হবে, সেসব কেন্দ্রে কারিগরি সহায়তা ও নিরাপত্তার জন্য সশস্ত্র বাহিনী নিয়োগ করা হবে। তবে ইসিতে এখনো এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত হয়নি। ইসি সম্মতি দিলে আমরা তাদের ব্যবহার করব।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা