kalerkantho

শনিবার  । ১৯ অক্টোবর ২০১৯। ৩ কাতির্ক ১৪২৬। ১৯ সফর ১৪৪১                     

যোগদান অনুষ্ঠানে স্বাস্থ্যমন্ত্রী

নতুন নিয়োগপ্রাপ্ত চিকিৎসকদের তিন বছর গ্রামে থাকতে হবে

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৪ সেপ্টেম্বর, ২০১৮ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



নতুন নিয়োগপ্রাপ্ত চিকিৎসকদের গ্রামের মানুষের সেবা দিতে তিন বছর গ্রামে থাকতে হবে। সেবার মানসিকতা নিয়েই গ্রামে যেতে হবে। গ্রামে যেন কারো সমস্যা না হয় সে জন্য প্রত্যেককে নিজ জেলায় এবং উপজেলায় পদায়নের চেষ্টা করা হয়েছে। গতকাল সোমবার বিএমএ মিলনায়তনে ৩৬তম বিসিএসে নিয়োগপ্রাপ্ত চিকিৎসকদের যোগদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম এসব কথা বলেন।

মন্ত্রী বলেন, বিবাহিত হলে স্বামী-স্ত্রীকে এক জায়গায় পদায়নের চেষ্টা করা হয়েছে। এখন দেশের যোগাযোগ ব্যবস্থা উন্নত হয়েছে। আলোকিত হয়েছে বাংলাদেশ। আশা করছি, গ্রামে থাকতে কারো কোনো সমস্যা হবে না। পেশাগত দায়িত্ব পালন করতে গিয়ে কোনো চিকিৎসককে যেন নির্যাতনের শিকার হতে না হয় সে ব্যবস্থা করা হবে।

৩৬তম বিসিএসে নিয়োগপ্রাপ্ত ১৮০ জন চিকিৎসকের যোগদান উপলক্ষে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। এর মধ্যে ১৪২ জন পুরুষ এবং ৫৬ জন নারী সহকারী সার্জন হিসেবে উপজেলা পর্যায়ে যোগদান করবেন। যোগদানের আগে ৪ ও ৫ সেপ্টেম্বর স্বাস্থ্য অধিদপ্তরে একটি ওরিয়েন্টেশন কোর্সে তাঁদের বাধ্যতামূলক অংশগ্রহণ করতে হবে বলে অনুষ্ঠানে জানানো হয়। ২০১৬ সালে ৩৬তম বিসিএসের বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয় এবং লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। ২০১৭ সালে তাঁদের মৌখিক পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। 

স্বাস্থসেবা বিভাগের সচিব সিরাজুল হক খানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য দেন বিএমএ সভাপতি ডা. মোস্তফা জালাল মহিউদ্দিন, ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব অধ্যাপক ডা. জামালউদ্দিন চৌধুরী, স্বাচিপ সভাপতি অধ্যাপক ডা. এম ইকবাল আর্সালান, মহাসচিব অধ্যাপক ডা. এম এ আজিজ, মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব (প্রশাসন) রফিকুল ইসলাম, স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা প্রমুখ। 

 

 

 

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা