kalerkantho

বৃহস্পতিবার । ১৪ নভেম্বর ২০১৯। ২৯ কার্তিক ১৪২৬। ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪১     

চট্টগ্রামে ফিলিং স্টেশন মালিকদের সঙ্গে প্রশাসনের বৈঠক

লাইসেন্সধারী ছাড়া পেট্রল ও অকটেন বিক্রি না করার নির্দেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক, চট্টগ্রাম   

৩ ফেব্রুয়ারি, ২০১৫ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



২০ দলীয় জোটের ডাকে অবরোধ-হরতালের নামে নাশকতা রোধে শুধু লাইসেন্সধারীদের কাছে পেট্রল ও অকটেন বিক্রির নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। একই সঙ্গে অবৈধভাবে পেট্রল ও অকটেন বিক্রেতাদের বিরুদ্ধে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হবে আজ মঙ্গলবার থেকে। এসব নির্দেশনা ছাড়াও ফিলিং স্টেশনে সিসি ক্যামেরা স্থাপন, মাত্রাতিরিক্ত পেট্রল ও অকটেন বিক্রি না করা এবং রেজিস্ট্রার বইতে ক্রেতাদের নাম-পরিচয় লিখে রাখার পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। এসব প্রচেষ্টার মাধ্যমে নাশকতাকারীরা যাতে সহজে পেট্রল ও অকটেন না পায় সেই ব্যবস্থা করতে যাচ্ছে প্রশাসন।
গতকাল সোমবার চট্টগ্রামের সার্কিট হাউসের সম্মেলন কক্ষে সকাল ১১টায় ফিলিং স্টেশনের মালিক ও খুচরা বিক্রেতাদের সঙ্গে বৈঠককালে চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মেজবাহ উদ্দিন এই নির্দেশনা দেন। বৈঠকে ব্যবসায়ী সংগঠনের নেতারা ছাড়াও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
বৈঠকে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) আবুল হোসেন, চিটাগাং চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি পরিচালক মাহফুজুল হক, বাংলাদেশ পেট্রল ডিজেলস অ্যাসোসিয়েশনের চট্টগ্রাম  বিভাগীয় সভাপতি এহসানুর রহমানসহ সংশ্লিষ্ট নেতারা বক্তব্য দেন।
বৈঠকে বক্তব্য রাখতে গিয়ে পেট্রলবোমা মেরে মানুষ হত্যাকে মানবতাবিরোধী অপরাধ উল্লেখ করে চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক মেজবাহ উদ্দিন বলেন, ‘প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী জনগণের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে আপ্রাণ প্রচেষ্টা চালাচ্ছে। কিন্তু কিছু কিছু সীমাবদ্ধতার কারণে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী সব জায়গায় সমানভাবে নিরাপত্তা দিতে পারবে না। এ কারণে সব নাগরিককে নিজ নিজ অবস্থান থেকে নাশকতাকারীদের বিরুদ্ধে সোচ্চার ভূমিকা রাখতে হবে।’ তিনি বলেন, ‘পেট্রলবোমা মেরে যারা মানুষ হত্যা করছে একদিন তাদের বিরুদ্ধে মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে বিচার হবে।’
চট্টগ্রামের পুলিশ সুপার এ কে এম হাফিজ আক্তার বলেন, ‘বাংলাদেশ সবার। তাই দেশকে রক্ষার জন্য সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। অর্থের বিনিময়ে একটি চক্র নিম্ন আয়ের মানুষের ব্যবহার করে মানুষ হত্যা করছে।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা