kalerkantho

বুধবার । ১৬ অক্টোবর ২০১৯। ১ কাতির্ক ১৪২৬। ১৬ সফর ১৪৪১       

ব্যক্তিত্ব

২৭ মার্চ, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



ব্যক্তিত্ব

ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত

আইনজীবী, সমাজকর্মী ও রাজনীতিবিদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্তের জন্ম ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ১৮৮৬ সালের ২ নভেম্বর। তাঁর বাবার নাম জগবন্ধু দত্ত। ১৯০৪ সালে তিনি নবীনগর হাই স্কুল থেকে প্রবেশিকা, ১৯০৮ সালে কলকাতার রিপন কলেজ থেকে বিএ এবং ১৯১০ সালে বিএল পরীক্ষায় পাস করেন। ১৯১১ সালে তিনি কুমিল্লা জেলা বারে যোগদান করেন। ১৯০৭ সালে ত্রিপুরা হিতসাধনীসভার সেক্রেটারি নির্বাচিত হন এবং ১৯১৫ সালে বন্যার্তদের মধ্যে ত্রাণসামগ্রী বিতরণে বড় ভূমিকা রাখেন। ১৯০৫ সালে তিনি বঙ্গভঙ্গবিরোধী আন্দোলনে যোগ দেন। ১৯১৯ সালে ময়মনসিংহে অনুষ্ঠিত বঙ্গীয় প্রাদেশিক কংগ্রেসের সম্মেলনে অংশগ্রহণ করেন। চিত্তরঞ্জন দাশের আহ্বানে তিনি অসহযোগ আন্দোলনে অংশগ্রহণ করেন। ১৯৩৭ সালে তিনি বঙ্গীয় ব্যবস্থাপক সভার সদস্য নির্বাচিত হন। বঙ্গীয় প্রজাস্বত্ব আইন সংশোধন এবং কৃষিঋণ গ্রহীতা ও মহাজনি আইন পাসের সঙ্গে তিনি সংশ্লিষ্ট ছিলেন। ১৯৪২ সালে ভারত ছাড় আন্দোলনে যোগ দেন। ব্রিটিশবিরোধী কার্যকলাপের জন্য তিনি বেশ কয়েকবার গ্রেপ্তার হন। ১৯৪৬ সালের নির্বাচনে তিনি কংগ্রেস দলের পক্ষে বঙ্গীয় ব্যবস্থাপক সভার সদস্য নির্বাচিত হন। ১৯৪৮ সালের ২৫ আগস্ট পাকিস্তান গণপরিষদে তিনি অধিবেশনের সব কার্যবিবরণী ইংরেজি ও উর্দুর পাশাপাশি বাংলাও অন্তর্ভুক্ত রাখার দাবি উত্থাপন করেন। ১৯৫৬ সালে পূর্ব পাকিস্তানের স্বাস্থ্য ও সমাজকল্যাণ বিষয়ক মন্ত্রী হিসেবে যোগ দেন। ১৯৬০ সালে তাঁর ওপর ‘এবডো’ প্রয়োগ করা হয়। ১৯৭১ সালের ২৯ মার্চ রাতে তাঁকে গ্রেপ্তার ও হত্যা করা হয়।

[বাংলাপিডিয়া অবলম্বনে]

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা