kalerkantho

বুধবার । ১১ ডিসেম্বর ২০১৯। ২৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৬। ১৩ রবিউস সানি     

গুজব রটনাকারীকে শাস্তি দিন

২৩ নভেম্বর, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ১ মিনিটে



রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্ব্বীরা বিগত এক যুগ ধরে বিভিন্ন পন্থায় চেষ্টা-তদবির করেও বর্তমান সরকারকে কোণঠাসা করতে পারছে না। তাই দেশি-বিদেশি প্রতিক্রিয়াশীল গোষ্ঠীর হাতে একমাত্র অস্ত্র আছে মিথ্যা গুজব ও অপপ্রচার। গোদের ওপর বিষফোড়া হিসেবে আবির্ভূত হয়েছে পরিবহন ধর্মঘট। অতীতেও দেখা গেছে এই পরিবহন ধর্মঘটে ক্ষমতাসীন জনৈক মন্ত্রী ও ক্ষমতাসীন দলভুক্ত পরিবহন মালিক-শ্রমিক নেতাদের কারসাজি। বর্তমান পরিবহন ধর্মঘটের পেছনে সেই অপশক্তিগুলো সক্রিয় কি না তা খতিয়ে দেখতে হবে। যেহেতু বর্তমান পরিবহন ধর্মঘট শতভাগ জনস্বার্থবিরোধী তথা পরিবহন দুর্ঘটনা ও নৈরাজ্য প্রতিরোধের বিরুদ্ধে পদক্ষেপ, সেহেতু জনগণকেও ধৈর্যসহকারে সরকারকে সহায়তা করতে হবে। সরকারের একার পক্ষে গণহারে পরিবহন ধর্মঘট ও নৈরাজ্য তিরোহিত করা সম্ভব নয়। সর্বোপরি সব ধরনের জনস্বার্থসংশ্লিষ্ট সরকারি-বেসরকারি পদক্ষেপে দল-মতের ঊর্ধ্বে থেকে সরকারকে সহায়তা করলেই যেকোনো ধরনের অস্থিরতা সৃষ্টির পাঁয়তারা বন্ধ এবং আপামর জনগণের কল্যাণ নিশ্চিত করা সম্ভব।

ভূঁইয়া কিসলু বেগমগঞ্জী

মাইশা ডিঅ্যান্ডএফ হাউস, ঢাকা।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা