kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৯ নভেম্বর ২০২২ । ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ।  ৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

মূল্যস্ফীতি নিয়ন্ত্রণে নীতি সুদহার ফের বাড়ল

নিজস্ব প্রতিবেদক   

৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



মূল্যস্ফীতি নিয়ন্ত্রণে নীতি সুদহার ফের বাড়ল

তিন মাসের ব্যবধানে রেপো বা নীতি সুদহার সাড়ে ৫ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ৫.৭৫ শতাংশ করেছে বাংলাদেশ ব্যাংক। নতুন এই সুদহার ২ অক্টোবর থেকে কার্যকর হবে। এর ফলে কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলোর নেওয়া ধারের অর্থের বিপরীতে ২৫ বেসিস পয়েন্ট বাড়তি সুদ দিতে হবে।

রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধ ও ডলারের বিপরীতে টাকার ক্রমাগত মান হারানোর প্রেক্ষাপটে মূল্যস্ফীতির বাড়তি চাপ সামলাতে এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ ব্যাংক।

বিজ্ঞাপন

বাণিজ্যিক ব্যাংকগুলো যখন বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে ঋণ নেয়, তখন নির্দিষ্ট পরিমাণে সুদ নেওয়া হয়। তাকে রেপো রেট বলে। রেপোর মাধ্যমে সাধারণত এক দিনের জন্য কেন্দ্রীয় ব্যাংক থেকে ধার করা বা জমা রাখা হয়।

বাংলাদেশ ব্যাংকের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, বৃহস্পতিবার কেন্দ্রীয় ব্যাংকের মনিটরি পলিসি কমিটির সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। কেন্দ্রীয় ব্যাংক এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে মূলত টাকার প্রবাহ কমাতে, যাতে ব্যাংকগুলো বেশি সুদের কারণে বাংলাদেশ ব্যাংক থেকে কম টাকা ধার করে, এটাই এ সিদ্ধান্তের মূল কারণ।

অন্যান্য নীতি সুদহার যেমন-রিভার্স রেপো ৪ শতাংশ, বিশেষ রেপো ৮ শতাংশ ও ব্যাংক রেটে ৪ শতাংশে কোনো পরিবর্তন আনা হয়নি।

বাংলাদেশ ব্যাংক বলছে, করোনার প্রভাব কাটিয়ে অর্থনৈতিক পুনরুদ্ধার কার্যক্রম শক্তিশালী হলেও চলমান ইউক্রেন যুদ্ধের কারণে সাপ্লাই চেইনে সৃষ্ট সমস্যা আরো বৃদ্ধি পাওয়ায় বিশ্ব চাহিদা ও সরবরাহের মধ্যে অসামঞ্জস্যতা এখনো বিদ্যমান রয়েছে। ফলে ২০২১ সালের শুরু থেকে বিশ্ববাজারে বেশির ভাগ পণ্য মূল্য বেড়েছে, যা এখনো পূর্বাবস্থায় ফিরে আসেনি। বিশ্ববাজারে সৃষ্ট মূল্যস্ফীতি বৃদ্ধির পরিপ্রেক্ষিতে বাংলাদেশে মূল্যস্ফীতি ঊর্ধ্বমুখী হওয়ার প্রেক্ষাপটে প্রত্যাশিত মূল্যস্ফীতিও বাড়ছে বিধায় তা নিয়ন্ত্রণে রাখার লক্ষ্যে ওভারনাইট রেপো সুদহার ২৫ বেসিস পয়েন্ট বাড়িয়ে ৫.৫০ শতাংশ থেকে ৫.৭৫ শতাংশে উন্নীত করা হয়েছে, যা আগামী ২ অক্টোবর ২০২২ হতে কার্যকর হবে।

এর আগে গত ৩০ জুন চলতি ২০২২-২৩ অর্থবছরের জন্য মুদ্রানীতি ঘোষণার সময় রেপো সুদহার ৫ শতাংশ থেকে ৫০ বেসিস পয়েন্ট বাড়িয়েছিল বাংলাদেশ ব্যাংক।

আর তারও এক মাস আগে ২৯ মে রেপো সুদহার ৪.৭৫ শতাংশ থেকে বাড়িয়ে ৫ শতাংশে উন্নীত করে।

মূল্যস্ফীতির চাপ সামলাতে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের এই সিদ্ধান্ত কিভাবে কাজ করবে জানতে চাইলে একজন কর্মকর্তা বলেন, এর ফলে ব্যাংকগুলো বেশি সুদে টাকা ধার করলেও ঋণের সুদ বাড়াতে পারবে না। এর ফলে ব্যাংক টাকা ধার নেওয়া কমাবে, ঋণও কম দেবে। এ কারণে এ সিদ্ধান্ত মূল্যস্ফীতি নিয়ন্ত্রণে ভূমিকা রাখবে।



সাতদিনের সেরা