kalerkantho

মঙ্গলবার । ২৯ নভেম্বর ২০২২ । ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ ।  ৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

পঞ্চগড়ে নৌকাডুবি

সেই ঘাটে জানুয়ারিতে সেতুর কাজ শুরু হবে

পঞ্চগড় প্রতিনিধি   

৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সেই ঘাটে জানুয়ারিতে সেতুর কাজ শুরু হবে

পঞ্চগড়ের সেই আউলিয়ার ঘাটে আগামী জানুয়ারির মধ্যে সেতুর নির্মাণকাজ শুরু হবে বলে ঘোষণা দিয়েছেন পঞ্চগড়-২ আসনের সংসদ সদস্য ও রেলপথমন্ত্রী মো. নূরুল ইসলাম সুজন। করতোয়া নদীর ওই ঘাটে নৌকাডুবিতে নিহত ব্যক্তিদের স্বজনদের মধ্যে আর্থিক সহায়তার চেক ও শুকনো খাবার বিতরণ অনুষ্ঠানে মন্ত্রী এই আশ্বাস দেন। গতকাল বৃহস্পতিবার দুপুুরে বোদা উপজেলার মাড়েয়া বামনহাট ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে ওই চেক ও খাবার হস্তান্তর করা হয়।

এ ছাড়া নৌকাডুবিতে যেসব পরিবার তাদের একমাত্র কর্মক্ষম ব্যক্তিকে হারিয়েছে, তাদের পুনর্বাসনের জন্য প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী উদ্যোগ নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী ডা. মো. এনামুর রহমান।

বিজ্ঞাপন

এ ছাড়া নৌকাডুবির ঘটনা তদন্তে কারো গাফিলতির প্রমাণ পেলে ব্যবস্থা নেওয়ারও আশ্বাস দেন তিনি।

মারা যাওয়া ব্যক্তিদের প্রতি পরিবারকে ৫০ হাজার টাকা, চাল, ডাল, তেল, চিনিসহ শুকনো খাবার তুলে দেন মন্ত্রী। রেড ক্রিসেন্টের পক্ষ থেকে প্রতি পরিবারকে পাঁচ হাজার টাকা করে দেওয়া হয়।  

গত রবিবারের নৌকাডুবির ঘটনায় গতকাল পর্যন্ত ৬৯ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। নিখোঁজ রয়েছে আরো তিনজন।

অপেক্ষা ফুরাচ্ছে না স্বপনের

আউলিয়ার ঘাটে ঘটনার দিন থেকে প্রতিদিন অপেক্ষা করতে দেখা যায় এক ব্যক্তিকে। চোখ ভরা জল। নদীর দিকে স্থির তাকিয়ে থাকেন। লাশ উদ্ধারের খবর শুনলেই দৌড়ে ছুটে যান। কিন্তু পরক্ষণেই মুখ কালো করে আবার এসে নদীর পারে বসছেন। কারণ তিনি তাঁর কাঙ্ক্ষিত মানুষকে এখনো খুঁজে পাননি। তাঁর নাম স্বপন চন্দ্র রায়। ঘটনার চার দিন পেরিয়ে গেলেও মেলেনি স্বপনের বাবা সুরেন্দ্রনাথের মরদেহ।

একদিকে পরিবারের অন্য সদস্যদের সৎকারসহ অন্যান্য ধর্মীয় প্রস্তুতি, অন্যদিকে বাবাকে খুঁজে না পাওয়ার হতাশায় পাগলপ্রায় স্বপন। স্বপনের বাবা সুরেন্দ্রনাথসহ এখনো আরো তিনজন নিখোঁজ রয়েছেন।

 

 



সাতদিনের সেরা