kalerkantho

বুধবার ।  ১৮ মে ২০২২ । ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ১৬ শাওয়াল ১৪৪৩  

বিদায় বিরজু মহারাজ

ছন্দ থামল কত্থকসম্রাটের

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৮ জানুয়ারি, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



ছন্দ থামল কত্থকসম্রাটের

বিরজু মহারাজ (১৯৩৭-২০২২)। ছবি : সংগৃহীত

বয়স হয়েছিল ৮৫ বছর। দীর্ঘদিন ধরে কিডনির সমস্যায় ভুগছিলেন। চলছিল ডায়ালিসিস। তার পরও তাঁর মৃত্যুসংবাদে শোকার্ত শিল্পজগৎ।

বিজ্ঞাপন

ভারতের উত্তর প্রদেশের লখনউতে মহারাজ পরিবারে ১৯৩৭ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারি জন্ম নেন বিরজু মহারাজ। গত রবিবার তাঁর নাতি স্বরাংশ মিশ্র সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে লেখেন, ‘দুঃখের সঙ্গে জানাতে হচ্ছে, পণ্ডিত বিরজু মহারাজ, আমার দাদু আর নেই।

গভীর দুঃখ এবং বিষাদে পরিবারের সবচেয়ে ভালোবাসার সদস্যটির মৃত্যুর খবর দিতে হচ্ছে। মহান আত্মা চলে গেলেন ২০২২ সালের ১৭ জানুয়ারি। ’

সুদীর্ঘ ৮৩ বছরের জীবনে উপমহাদেশীয় নৃত্যচর্চার পাশাপাশি শাস্ত্রীয় সংগীতের ধারায় অসামান্য অবদান রেখে প্রয়াত হলেন বিরজু মহারাজ। তাঁকে বলা হতো কত্থক নাচের গুরু বা সম্রাট। অনেকে বলতেন ‘কত্থকের মহারাজ’।

পণ্ডিত বিরজু মহারাজ তবলায় পারদর্শিতার পাশাপাশি ছবি আঁকায়ও দক্ষ ছিলেন। এ ছাড়া নাল, পাখোয়াজ, সরোদ, সেতার, বাঁশি, বেহালাসহ নানা বাদ্যযন্ত্রে তাঁর দক্ষতা ছিল। গানও গাইতেন। ঠুমরি, দাদরা, ভজন ও গজলে বেশ দখল ছিল তাঁর।

গত রবিবার রাতে নাতির সঙ্গে খেলছিলেন এই কীর্তিমান। হঠাৎ করে অসুস্থ বোধ করায় তাঁকে হাসপাতালে নেওয়া হয়। কিডনিতে সমস্যা ছিল। হৃদরোগের সমস্যাও ছিল তাঁর। রবিবার দিবাগত গভীর রাতে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েই তিনি মারা যান।  

বংশানুক্রমে বিরজু মহারাজের বাড়িতে চলে আসছে কত্থকের চর্চা। ভারতীয় নাচের প্রধান চারটি ধারার একটি এই কত্থক। তাঁর দুই কাকা শম্ভু মহারাজ ও লচ্ছু মহারাজ ছিলেন এর বিখ্যাত শিল্পী। বিরজু মহারাজ নাচের তালিম নিয়েছেন বাবা অচ্চন মহারাজের কাছে।

বিরজু মহারাজ শাস্ত্রীয় সংগীতের ধারায় অবদান রাখার পাশাপাশি চলচ্চিত্রে কোরিওগ্রাফিতেও যুক্ত ছিলেন। বাংলা সিনেমার বিখ্যাত নির্মাতা সত্যজিৎ রায়ের ‘শতরঞ্জি কি খিলাড়ি’র একটি গানে কোরিওগ্রাফার ছিলেন তিনি। ‘দেবদাস’, ‘বাজিরাও মাস্তানি’ সিনেমাতেও তাঁকে কোরিওগ্রাফারের ভূমিকায় দেখা যায়। বিশ্বরূপম চলচ্চিত্রে কোরিওগ্রাফি করার স্বীকৃতি হিসেবে জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পান তিনি।

ভারত সরকার ১৯৮৩ সালে তাঁকে পদ্মবিভূষণ পদকে ভূষিত করে। এ ছাড়া দেশে-বিদেশে নানা সম্মাননায় ভূষিত হন তিনি।

বিরজু মহারাজের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন বলিউডর প্রথম সারির তারকারা। মাধুরী দীক্ষিত, দীপিকা পাড়ুকোন, প্রিয়াঙ্কা চোপড়া এবং হালের আলিয়া ভাট পর্যন্ত তাঁর শিষ্যত্ব গ্রহণ করেন। তাঁর কোরিওগ্রাফিতে সিনেমায় কাজ করেছেন এই তারকারা।

মাধুরী দীক্ষিত শোকবার্তায় লিখেছেন, ‘মহারাজ কিংবদন্তি হয়েও ছিলেন শিশুর মতো নিষ্পাপ। তিনি ছিলেন একাধারে আমার বন্ধু ও গুরু। ’ সূত্র : এনডিটিভি, আনন্দবাজার

 



সাতদিনের সেরা