kalerkantho

শনিবার ।  ২১ মে ২০২২ । ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ১৯ শাওয়াল ১৪৪৩  

বান্দরবানে নারী খুন স্বামী ‘নিখোঁজ’

নিজস্ব প্রতিবেদক, বান্দরবান   

৭ জানুয়ারি, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



বান্দরবানে নারী খুন স্বামী ‘নিখোঁজ’

বান্দরবান সদরে পাইয়নু মারমা (২৮) নামের এক নারী খুন হয়েছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার ভোরে সদরের রাজবিলা ইউনিয়নের থংজমাপাড়ায় এ ঘটনা ঘটে। ঘটনার পর থেকে ওই নারীর স্বামী রেথোয়াই মারমা (৩৮) নিখোঁজ রয়েছেন।

রেথোয়াই মারমা পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির (পিসিজেএসএস) সক্রিয় সদস্য বলে জানা গেছে।

বিজ্ঞাপন

ওই নারীর খুনের বিষয়ে স্থানীয় সূত্রগুলো প্রথমে জানিয়েছিল, অস্ত্রধারীরা রেথোয়াই মারমাকে অপহরণ করে নিয়ে যাওয়ার সময় বাধা দিলে পাইয়নু মারমাকে কুপিয়ে ও গুলি করে হত্যা করে।

পরবর্তী সময়ে স্থানীয় বাসিন্দাদের অনেকে বলেছে, ওই দম্পতির মধ্যে পারিবারিক কলহ চলে আসছিল। পাইয়নু মারমাকে হত্যার পর তাঁর স্বামী রেথোয়াই মারমা পালিয়েছেন। পুলিশ বলছে, ঘটনাটি তারা নিশ্চিত নয়।  

রাজবিলা ইউনিয়ন পরিষদের (ইউপি) ২ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য শৈ সা চিং মারমা দাবি করেন, পারিবারিক ঝগড়াঝাঁটিকে কেন্দ্র করে রেথোয়াই মারমা নিজে তাঁর স্ত্রীকে হত্যা করে পালিয়েছেন। তিনি জানান, রেথোয়াই মারমা ও পাইয়নু মারমা দুজনেরই এটি দ্বিতীয় বিবাহ। তাঁদের একটি ছেলেসন্তানও রয়েছে। পারিবারিক বিষয় নিয়ে তাঁদের মধ্যে প্রায়ই ঝগড়া হতো।

বান্দরবান সদর থানার ওসি রফিকুল ইসলাম জানান, ঘটনাস্থলে গিয়ে পরস্পরবিরোধী দুই ধরনের বক্তব্য পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে পুলিশ এখনো নিশ্চিত নয়। রেথোয়াই মারমাকে উদ্ধার বা আটক করার আগ পর্যন্ত এ বিষয়ে মন্তব্য করা ঠিক হবে না। ওসি জানান, পাইয়নু মারমার মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য বান্দরবান সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পাওয়ার পর কিছু ক্লু পাওয়া যেতে পারে। ওসি জানান, রেথোয়াই মারমার সন্ধানে পুলিশ আশপাশের এলাকাগুলোতে তল্লাশি অভিযান চালাচ্ছে।



সাতদিনের সেরা