kalerkantho

সোমবার । ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮। ২৯ নভেম্বর ২০২১। ২৩ রবিউস সানি ১৪৪৩

শ্রিংলা বললেন

অর্থায়ন শুরু হয়েছে বিমসটেক কানেক্টিভিটিতে

কূটনৈতিক প্রতিবেদক   

২৬ অক্টোবর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



অর্থায়ন শুরু হয়েছে বিমসটেক কানেক্টিভিটিতে

হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা

বে অব বেঙ্গল ইনিশিয়েটিভ ফর মাল্টিসেক্টরাল, টেকনিক্যাল অ্যান্ড ইকোনমিক কো-অপারেশন বা বিমসটেককে এই অঞ্চলের অর্থনৈতিক সমৃদ্ধির শক্তিশালী বাহন হিসেবে অভিহিত করেছেন ভারতের পররাষ্ট্রসচিব হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা। গতকাল সোমবার বিমসটেকবিষয়ক একটি আন্তর্জাতিক সিম্পোজিয়ামে তিনি বলেন, বিমসটেকের পরিবহন কানেক্টিভিটি মহাপরিকল্পনায় অর্থায়ন শুরু হয়েছে। ভারতের কলকাতার ইনস্টিটিউট অব সোশ্যাল অ্যান্ড কালচারাল স্টাডিজ (আইএসসিএস) ওই সিম্পোজিয়াম আয়োজন করে। উল্লেখ্য, বাংলাদেশ, ভুটান, ভারত, মিয়ানমার, নেপাল, শ্রীলঙ্কা ও থাইল্যান্ড বিমসটেকের সদস্য।

ভারতের পররাষ্ট্রসচিব তাঁর বক্তব্যে কানেক্টিভিটি জোরদারে বিমসটেক উপকূলীয় জাহাজ চলাচল চুক্তি এবং মোটরযান চলাচল চুক্তির ক্ষেত্রে অগ্রগতির কথা জানান। তিনি ১২৬ বিলিয়ন বিমসটেক কানেক্টিভিটি মহাপরিকল্পনা বাস্তবায়ন ও অর্থায়নে সদস্য দেশগুলোকে সম্মিলিত কৌশল প্রণয়নের আহ্বান জানান।

শ্রিংলা বলেন, ‘ট্রান্সপোর্ট কানেক্টিভিটি মহাপরিকল্পনায় বাস্তবায়ন ও অর্থায়ন কৌশলে আমাদের এখন সম্মিলিত কৌশল নেওয়া প্রয়োজন। আমি আনন্দের সঙ্গে জানাচ্ছি যে এই লক্ষ্যে এরই মধ্যে কাজ শুরু হয়েছে। এডিবি গত মাসে মহাপরিকল্পনায় অর্থায়নের বিষয়ে প্রথম পরামর্শক কর্মশালা করেছে।’

তিনি বলেন, ‘গত বছর ভারতের সভাপতিত্বে বিশেষজ্ঞ গ্রুপ বিমসটেক ট্রান্সপোর্ট কানেক্টিভিটি বিষয়ক মহাপরিকল্পনা চূড়ান্ত করেছে। সেখানে মানুষ ও পণ্যের চলাচল জোরদারে ট্রানজিট সুবিধাসহ মাল্টিমোডাল পরিবহন ব্যবস্থার কথা বলা হয়েছে। এই অঞ্চলের মধ্যে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ জোরদার করবে।’

শ্রিংলা জানান, মহাপরিকল্পনা অনুযায়ী ২০১৮ থেকে ২০২৮ সাল মেয়াদে ১০ বছরে ২৬৪টি প্রকল্পের জন্য ১২৬ বিলিয়ন মার্কিন ডলার বিনিয়োগ প্রয়োজন। এর মধ্যে ৫৫.২ বিলিয়ন ডলারের কয়েকটি প্রকল্প এরই মধ্যে বাস্তবায়নের বিভিন্ন ধাপে আছে।

তিনি জানান, বিমসটেক উপকূলীয় জাহাজ চলাচল চুক্তি ও মোটরযান চলাচল চুক্তি চূড়ান্ত করার ক্ষেত্রে সদস্য দেশগুলোতে অগ্রগতি আছে। এই চুক্তিগুলো এই অঞ্চলে কানেক্টিভিটি জোরদারে আইনি কাঠামো সৃষ্টি করবে।

শ্রিংলা বলেন, বিমসটেক কাঠামোর আওতায় আঞ্চলিক সহযোগিতা জোরদারে ভারত জোরালোভাবে অঙ্গীকারবদ্ধ। বিমসটেককে আরো ফলভিত্তিক ও কার্যকর সংস্থায় পরিণত করতে ভারত কাজ করছে।



সাতদিনের সেরা