kalerkantho

মঙ্গলবার । ৩ কার্তিক ১৪২৮। ১৯ অক্টোবর ২০২১। ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

তালেবান নিয়ে মতভেদ

সার্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের বৈঠক বাতিল

কূটনৈতিক প্রতিবেদক   

২৩ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সার্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের বৈঠক বাতিল

আফগানিস্তানে ক্ষমতার পালাবদলের প্রভাব পড়েছে দক্ষিণ এশীয় আঞ্চলিক সহযোগিতা সংস্থার (সার্ক) কর্মসূচিতে। নিউ ইয়র্কে সার্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের বৈঠক বাতিল করা হয়েছে। আগামী শনিবার ওই বৈঠক হওয়ার কথা ছিল।

জানা গেছে, সার্কের সদস্য আফগানিস্তানের প্রতিনিধিত্ব কে করবেন তা নিয়েই সদস্য দেশগুলোর মধ্যে ঐকমত্য হয়নি। গত ১৫ আগস্ট তালেবান কাবুলে প্রবেশের পর আফগানিস্তানের প্রেসিডেন্ট আশরাফ গনি দেশ ছাড়েন। তালেবান এখন কাবুলের নিয়ন্ত্রণ নিয়েছে। কিন্তু কোনো দেশই এখনো তালেবান কর্তৃপক্ষকে আফগানিস্তানের বৈধ সরকার হিসেবে আনুষ্ঠানিক স্বীকৃতি দেয়নি। বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, পাকিস্তান সার্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রীদের বৈঠকে তালেবানের প্রতিনিধিকে অংশগ্রহণের ওপর জোর দিয়েছিল।

কিন্তু ভারতসহ আরো কয়েকটি সদস্য রাষ্ট্র এতে রাজি হয়নি। এর ফলে বৈঠক অনুষ্ঠানের উদ্যোগ ভেস্তে যায়। সার্কের সভাপতি নেপাল বৈঠক বাতিলের বিষয়টি সদস্য দেশগুলোকে অবহিত করেছে।

রীতি অনুযায়ী, প্রতিবছর সেপ্টেম্বর মাসে নিউ ইয়র্কে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশন চলার ফাঁকে অনানুষ্ঠানিক বৈঠকে বসেন সার্কের সদস্য আট দেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা। গত বছর সশরীরে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের সাধারণ বিতর্ক না হলেও ভার্চুয়ালি বৈঠক করেছিলেন সার্কের পররাষ্ট্রমন্ত্রীরা।

এদিকে তালেবান কর্তৃপক্ষের পররাষ্ট্রমন্ত্রী আমির খান মুত্তাকি চলমান জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের উচ্চ পর্যায়ের বিতর্কে বক্তব্য দেওয়ার সুযোগ চেয়েছেন। একই সঙ্গে তালেবান কর্তৃপক্ষ জাতিসংঘে আফগানিস্তানের রাষ্ট্রদূত হিসেবে সোহাইল খানকে মনোনয়ন দিয়েছে। সোহাইল খান তালেবানের দোহাভিত্তিক অফিসের মুখপাত্র।

জাতিসংঘ মহাসচিবের উপমুখপাত্র ফারহান হক বলেছেন, জাতিসংঘ মহাসচিব তালেবানের ওই চিঠি ক্রেডেনশিয়াল কমিটিতে পাঠিয়েছেন।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানায়, জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের উচ্চ পর্যায়ের বিতর্ক আগামী সোমবার শেষ হচ্ছে। এর আগে ক্রেডেনশিয়াল কমিটির বৈঠক হওয়ার সম্ভাবনা কম। এ ক্ষেত্রে তালেবান মনোনীত প্রতিনিধি সাধারণ পরিষদে উচ্চ পর্যায়ের বিতর্কে বক্তব্য দিতে পারবেন না। জাতিসংঘের ক্রেডেনশিয়াল কমিটি নতুন দূত হিসেবে তালেবান মনোনীত দূতকে গ্রহণ না করা পর্যন্ত আফগানিস্তানের বর্তমান রাষ্ট্রদূত গোলাম মোহাম্মদ ইসাকজাই দায়িত্ব চালিয়ে যেতে পারবেন। তালেবানের দূতকে গ্রহণ করা না-করার মধ্য দিয়ে তাদের স্বীকৃতি দেওয়া না-দেওয়ার প্রতিফলন হিসেবে দেখা হচ্ছে।

 



সাতদিনের সেরা