kalerkantho

শনিবার । ৩ আশ্বিন ১৪২৮। ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১। ১০ সফর ১৪৪৩

সবিশেষ

২৫ হাজার বছর আগেও করোনায় ভুগেছে এশিয়া

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২৬ জুলাই, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



২৫ হাজার বছর আগেও করোনায় ভুগেছে এশিয়া

রাতারাতি মাথাচাড়া দিয়ে ওঠেনি নভেল করোনাভাইরাস, বরং আজ থেকে প্রায় ২৫ হাজার বছর আগেও পৃথিবীর বুকে থাবা বসিয়েছিল একই ধরনের মারণ সংক্রমণ। তবে ইউরোপ-আমেরিকা নয়, ওইবারও এশিয়াজুড়েই চলেছিল মৃত্যুর মিছিল, যার বলি হয়েছিলেন আমাদের পূর্বপুরুষরা।

মানবদেহের জিনোম সিকোয়েন্স পরীক্ষা করতে গিয়ে এমন তথ্যই আবিষ্কার করেছেন যুক্তরাষ্ট্রের ইউনিভার্সিটি অব আরিজোনা এবং অস্ট্রেলিয়ার ইউনিভার্সিটি অব অ্যাডিলেডের গবেষকরা।

হাজার হাজার বছর আগে মহামারির বিরুদ্ধে মানবদেহে যে প্রতিরোধক্ষমতা গড়ে ওঠে তার সঙ্গে এখনকার সার্স-কোভ-২ ভাইরাসের বিরুদ্ধে গড়ে ওঠা  প্রতিরোধক্ষমতার মিল খুঁজে পেয়েছেন বিজ্ঞানীরা। তাঁদের দাবি, অতীতে মহামারির প্রকোপে মানবদেহে জিনের যে বিবর্তন ঘটেছে, সে সম্পর্কে বিশদ তথ্য পাওয়া গেলে করোনার সব ধরনের রূপের বিরুদ্ধে প্রতিরোধ গড়ে তোলা সম্ভব হতে পারে।

হাজার হাজার বছর আগে মূলত পূর্ব এশিয়ায় করোনা হানা দিয়েছিল বলে দাবি গবেষকদের। ইউনিভার্সিটি অব অ্যারিজোনার বাস্তুতন্ত্র ও বিবর্তনবাদের শিক্ষক ডেভিড এনার্ড বলেন, ‘চিরকালই মানুষের ওপর ভাইরাসের হানা চলে আসছে। মানুষের জিনের স্বাভাবিক বিবর্তনের অন্যতম চালিকাশক্তি ভাইরাস। কারণ জিনই মানুষকে ভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়তে সাহায্য করে এবং ভবিষ্যৎ প্রজন্মের মধ্যেও প্রতিরোধ গড়ে তোলে। এটাও সত্যি যে অতীতে যা ঘটেছে, ভবিষ্যতে তারই পুনরাবৃত্তি ঘটে।’ এনার্ড ও তাঁর সহযোগীরা প্রায় আড়াই হাজার মানুষের ২৬ প্রজাতির জিনোম সিকোয়েন্স পরীক্ষা করে হাজার হাজার বছর আগে করোনা সংক্রমণের হদিস পেয়েছেন। বিভিন্ন বিজ্ঞান গবেষণা পত্রিকায় এরই মধ্যে তাঁদের গবেষণা প্রকাশিত হয়েছে। সূত্র : আনন্দবাজার পত্রিকা।



সাতদিনের সেরা