kalerkantho

রবিবার । ১০ শ্রাবণ ১৪২৮। ২৫ জুলাই ২০২১। ১৪ জিলহজ ১৪৪২

লেখকের জন্য অপেক্ষা

আজিজুল পারভেজ   

২২ মার্চ, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৫ মিনিটে



লেখকের জন্য অপেক্ষা

স্টলে উপস্থিত লেখককে উপলক্ষ করে ক্রেতার লাইন। প্রিয় লেখকের নতুন বইটি কিনে তাতে নিচ্ছে অটোগ্রাফ। কেউবা পাশে দাঁড়িয়ে ছবিও তুলছে। ক্লান্তিহীনভাবে লেখক সঙ্গ দিচ্ছেন তাঁর ভক্ত, পাঠক অনুরাগীদের। আবার কোনো কোনো লেখক কোনো একটি স্টলে বসেন না। ঘুরে বেড়ান। আড্ডা মারেন।

অমর একুশে বইমেলার চিরাচরিত দৃশ্য এটি। কিন্তু এবার সেদিক দিয়ে মেলায় অপূর্ণতা থেকে যাচ্ছে। দেখা মিলছে না জনপ্রিয় লেখকদের। কেউ কেউ এর মধ্যে মেলায় ঢুঁ মারলেও পাঠকের সঙ্গে মিথস্ক্রিয়াটা হচ্ছে না। ছিমছাম, সাজানো-গোছানো পরিবেশ। আসছে নতুন বই। পাঠকও আসছে কমবেশি। কিন্তু মেলায় প্রাণ সঞ্চারণকারী লেখকদের অনুপস্থিতিটা চোখে পড়ছে। করোনা পরিস্থিতির উন্নতি হলেই লেখক-পাঠক-প্রকাশকের সম্মিলনটা পূর্ণমাত্রায় ঘটবে। পূর্ণতা পাবে বইমেলা—সেই অপেক্ষায় সবাই।

প্রকাশনা সংস্থা অনন্যায় জনপ্রিয় কথাসাহিত্যিক ইমদাদুল হক মিলন নিয়মিত বসেন। এবার এখনো আসতে শুরু করেননি। স্টলে রয়েছে ইমদাদুল হক মিলনের নন্দিত উপন্যাস নুরজাহানসহ বেশ কিছু বই।

কাকলী প্রকাশনী থেকে জানানো হলো, তাদের স্টলে প্রতিবছরই জনপ্রিয় কবি নির্মলেন্দু গুণ, কথাসাহিত্যিক আনিসুল হক প্রমুখ বসেন। কিন্তু এবার এখনো কেউ আসেননি। সময় প্রকাশন থেকেও একই তথ্য জানানো হয়েছে।

জনপ্রিয় লেখক মুহম্মদ জাফর ইকবাল গত শনিবার রাতে মেলার সোহরাওয়ার্দী উদ্যান অংশে একবার ঢুঁ মেরেই চলে গেছেন।

লিটলম্যাগ চত্বরে ধর্মঘট : বইমেলার প্রাণসঞ্চারণের অন্যতম অংশ লিটলম্যাগ চত্বরে ধর্মঘটের ডাক দিয়েছেন লিটলম্যাগ সম্পাদক-কর্মীরা। তাঁদের অভিযোগ, সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে মেলার দক্ষিণ-পূর্ব অংশের যেখানে এবার বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে, সেটা মেলা থেকে অনেকটা আলাদা হয়ে গেছে। স্টলের সোজা সারি বিন্যাসের কারণে পারস্পরিক সম্মিলন ঘটছে না। আড্ডাটাও জমছে না। মেলার পশ্চিম অংশে গত বছর যেখানে ছিল সেখানেই

লিটলম্যাগ চত্বর ফিরিয়ে নেওয়ার দাবি তাঁদের। এই দাবিতে তাঁরা মৌন মিছিলও করেছেন। স্টল বন্ধ রাখার পাশাপাশি কালো ব্যাজ ধারণের কর্মসূচি ঘোষণা করেছেন। বাংলা একাডেমি কর্তৃপক্ষ তাদের দাবি মেনে নেওয়ার আশ্বাস দিয়েছে।

স্টুডেন্ট ওয়েজের প্রকাশক লিয়াকতউল্লাহ মারা গেছেন। তাঁর প্রয়াণে প্রকাশনা সংস্থাটি বন্ধ দেখা গেল।

মেলার অনুষ্ঠান : গতকাল মেলা শুরু হয় বিকেল ৩টায়। বিকেল ৪টায় মেলার মূল মঞ্চে অনুষ্ঠিত হয় ‘স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী : স্বাধীন বাংলা বেতারকেন্দ্র’ শীর্ষক আলোচনা অনুষ্ঠান। প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন অধ্যাপক নিরঞ্জন অধিকারী। আলোচনায় অংশ নেন কল্যাণী ঘোষ, বুলবুল মহলানবীশ ও আশরাফুল আলম। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন রামেন্দু মজুমদার। আজ সোমবার বিকেল ৪টায় বইমেলার মূল মঞ্চে অনুষ্ঠিত হবে ‘স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তী : বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের সাহিত্য’ শীর্ষক আলোচনা অনুষ্ঠান।

নতুন বই : বইমেলার চতুর্থ দিন গতকাল এসেছে ৮১টি নতুন বই। এর মধ্যে গল্প আটটি, উপন্যাস ১১টি, কবিতা ২৩টি ও মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক ১৭টি বই রয়েছে। রণেশ মৈত্রর ‘আত্মজীবনী’ ও মো. এনামুল হকের ‘বঙ্গবন্ধু হত্যার সশস্ত্র প্রতিবাদ’ মেলায় এনেছে অনুপম প্রকাশনী। মুনতাসীর মামুনের ‘মুক্তিযুদ্ধের ভিন্ন দলিলপত্র’ এনেছে অনন্যা। আবু সাঈদ খানের ‘ধ্বনি প্রতিধ্বনি সমকালীন সমাজ ও রাজনীতি’ এনেছে সমাবেশ। গোলাম কিবরিয়া ভূইয়ার ‘মুক্তিযুদ্ধ ও চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়’, মহাদেব সাহার ‘৫০ প্রেমের কবিতা’ প্রকাশ করেছে ঐতিহ্য। আনোয়ারা সৈয়দ হকের ‘৫০ প্রেমের কবিতা’ এনেছে আগামী প্রকাশনী।

তিনটি গল্পের বই মেলায় এনেছে অন্যপ্রকাশ। এর মধ্যে আছে হরিশংকর জলদাসের ‘গগণ সাপুই’, পিয়াস মজিদের ‘রিমঝিম মাংসবিতান’ ও হক ফারুক আহমেদের ‘জলের জমিন’। প্রকাশিত বইয়ের মধ্য থেকে নির্বাচিত চারটির তথ্য তুলে ধরা হলো।

‘মাই ফাদার, মাই বাংলাদেশ’ : মেলায় প্রকাশিত হয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বই ‘মাই ফাদার, মাই বাংলাদেশ’। শেখ হাসিনার লেখা ‘শেখ মুজিব আমার পিতা’ বইয়ের নির্বাচিত ছয়টি প্রবন্ধের ইংরেজি অনুবাদ গ্রন্থ এটি। প্রবন্ধগুলো হলো  Bangladesh Wins Freedom, My father Sheikh Mujibur Rahman, Memories of Tungipara and the Future of Rural Bangladesh, The Murder of Sheikh Mujib and the Attack on Our Young Nation, The House on Dhanmondi Thirtytwo, A Pilgrimage of the Nation. 

বইটি অনুবাদ করেছেন সুনন্দন রায় চৌধুরী। সম্পাদনা করেছেন ড. রাশিদ আসকারী। প্রকাশ করেছে আগামী প্রকাশনী। মূল্য ২৫০ টাকা।

আমাদের সেই হারিয়ে যাওয়া পল্টন : অধ্যাপক মুনতাসীর মামুনের ঢাকা সম্পর্কিত নতুন বই। রাজধানীর পল্টনের যে অন্য রকম একটি ইতিহাস আছে তা অনেকেরই জানা নেই। শুধু কি পল্টন? বিশুদ্ধ পানি সরবরাহ, পাগলা গারদ গড়ে ওঠার পেছনেও তো ইতিহাস আছে। আছে ঢাকার ইংরেজ কুঠির আদি ইতিহাস। এসবই তুলে এনেছেন খ্যাতিমান এই গবেষক। বইটি প্রকাশ করেছে সুবর্ণ। মূল্য ৪০০ টাকা।

৭ই মার্চ থেকে স্বাধীনতা : ৭ই মার্চের ভাষণ বঙ্গবন্ধুর অমর সৃষ্টি, বাঙালির মহাকাব্য। এ ভাষণ আড়াই হাজার বছরের মানবজাতির ইতিহাসে অন্যতম শ্রেষ্ঠ ভাষণ হিসেবে সমাদৃত। বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চের ভাষণ বাঙালির জন্য, বিশ্বমানবতার জন্য কেন এত গুরুত্ব ও তাৎপর্যপূর্ণ, গ্রন্থটির ১১টি অধ্যায় ও ছয়টি পরিশিষ্টে তারই আলোকপাত করা হয়েছে। বাঙালির জাতীয় মুক্তির দীর্ঘ ঐতিহাসিক পটভূমিতে সাজানো বহুমাত্রিক বিশেষণধর্মী এ গ্রন্থ পাঠকের জন্য অনেক কিছু নতুন করে জানা ও বোঝার ক্ষেত্রে সহায়ক হবে। বইটি প্রকাশ করেছে অন্যপ্রকাশ। মূল্য ৪০০ টাকা।

যুগল দাসী : ১০টি গল্পে মানবজীবনের দশদিগন্ত উন্মোচন ঘটিয়েছেন হরিশংকর জলদাস। দুঃখ, অপমান, নিরাশা, প্ররোচনা, লালসা, জিঘাংসা, প্রেম, হিংস্রতা—এসব নিয়েই তো মানবজীবন। লেখক জীবনের এই অনুষঙ্গগুলোকে গল্পে গল্পে দেখিয়েছেন। এই গল্পগ্রন্থে পুরাণ আছে, আছে আজ সকালের বাস্তব বৃত্তান্তও। এখানে মুক্তিযুদ্ধ যেমন স্থান পেয়েছে, তেমনি ঠগবাজ জীবনের চিত্রও পরম যত্নে অঙ্কিত হয়েছে। বইটি প্রকাশ করেছে মাওলা ব্রাদার্স। মূল্য ২০০ টাকা।



সাতদিনের সেরা