kalerkantho

মঙ্গলবার । ৪ কার্তিক ১৪২৭। ২০ অক্টোবর ২০২০। ২ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

প্রচারে ট্রাম্প ঘরে বাইডেন

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

১৯ অক্টোবর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



প্রচারে ট্রাম্প ঘরে বাইডেন

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে যে কদিন হাসপাতালে ছিলেন, সে কদিনের ক্ষতি পুষিয়ে নিতে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প উঠেপড়ে লেগেছেন। এক দিনে তিনটি অঙ্গরাজ্যে জনসভা করেছেন তিনি। জোরদার জনসভা করার এ ধারা নির্বাচন পর্যন্ত তিনি অব্যাহত রাখবেন বলে জানিয়েছেন তাঁর মুখপাত্র। এদিকে তাঁর প্রতিদ্বন্দ্বী জো বাইডেন ঘরে বসেই বিবৃতি দিয়ে প্রচারের দায় সেরেছেন।

গত শনিবার মিশিগান অঙ্গরাজ্যের মুসকেগনে সভা করার মধ্য দিয়ে সেদিনের প্রচার শুরু করেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। সেখানে ডেমোক্র্যাট প্রেসিডেন্ট প্রার্থী জো বাইডেন ও তাঁর পরিবার সম্পর্কে তিনি বলেন, ‘জো বাইডেন দুর্নীতিগ্রস্ত রাজনীতিক এবং বাইডেন পরিবার হলো অপরাধের আঁতুড়ঘর।’ বাইডেন সম্পর্কে তিনি আরো বলেন, ‘উনি একজন অপরাধী, উনি অপরাধ করেছেন। উনি জাতীয় নিরাপত্তার জন্য হুমকি।’

নারী ভোটারদের টানার জন্য ট্রাম্প এদিন যেসব কথাবার্তা বলেছেন, সেগুলোকে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যম ‘অস্বাভাবিক’ অ্যাখ্যা দিয়েছে। তিনি আসলে শহরতলির বয়স্ক নারী ভোটারদের নানা ভয় দেখিয়েছেন। তিনি দাবি করেছেন, ডেমোক্র্যাটরা ক্ষমতায় এলে তাদের ‘র‌্যাঞ্চ স্টাইলের সুন্দর বাড়ির আশপাশের এলাকায় সস্তাদরের আবাসন প্রকল্প’ গড়ে উঠবে। সিরিয়া, সোমালিয়া, ইয়েমেনের অভিবাসীতে ভেসে যাবে মিশিগানের সব শহরতলি। নারীদের উদ্দেশে ট্রাম্প বলেন, ‘আমি আপনাদের এলাকা রক্ষা করেছি। নারীকুল, শহরতলির নারীকুল, আপনাদের তো ট্রাম্পকে ভালোবাসার কথা।’

ট্রাম্পের এত কথাবার্তার মধ্যে মহামারির কোনো জায়গাই ছিল না। অথচ মহামারিতে যুক্তরাষ্ট্রে দুই লাখ ১৯ হাজারের বেশি মানুষ মারা গেছে, আক্রান্ত হয়েছে ৮০ লাখের বেশি। আক্রান্ত ও মৃতের হার বাড়তে শুরু করেছে ফের। প্রেসিডেন্ট নিজেও করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন। এ রকম একটি স্পর্শকাতর ইস্যু পুরোপুরি বাদ দিয়ে ট্রাম্প ভোটারদের মন ভোলানো কথাবার্তার মধ্য দিয়ে দেড় ঘণ্টা পার করে দেন। মিশিগান থেকে ট্রাম্প উড়ে যান উইসকনসিন অঙ্গরাজ্যের জ্যানেসভিলে। সেখানেও বাইডেনকে তুলাধোনা করেন তিনি। এরপর তিনি যান নেভাডার লাস ভেগাসে।

ট্রাম্পের মুখপাত্র ক্যালেই ম্যাকইনানি ফক্স নিউজকে জানান, রবি ও সোমবার দুটি করে মোট চারটি অঙ্গরাজ্য সফর করবেন প্রেসিডেন্ট এবং নির্বাচনের আগ পর্যন্ত তাঁর এ ব্যস্ততা অব্যাহত থাকবে।

বিভিন্ন জরিপ বলছে, জনসমর্থনের দিক থেকে বড় ব্যবধানে বাইডেনের চেয়ে পিছিয়ে আছেন ট্রাম্প। বাইডেনের প্রচার শিবির অবশ্য বলছে, জরিপে যেভাবে দেখানো হচ্ছে, ব্যবধান ততটা নয়, বরং দুই প্রেসিডেন্ট প্রার্থীর অবস্থান বেশ কাছাকাছি। তাই বলে মোটেই ঝুঁকি নিতে রাজি নন ট্রাম্প। জরিপে যাই বলা হোক না কেন, সব সমর্থকের ভোট নিশ্চিত করতে চান তিনি এবং সে লক্ষ্যেই চলছে তার দৌড়ঝাঁপ, এমন অভিমত পর্যবেক্ষকদের।

ট্রাম্প ব্যস্ততায় দিন কাটালেও বাইডেন গত শনিবার ঘরে বসে দিন পার করেছেন। এদিন তিনি কেবল বিবৃতি দিয়ে কাজ সেরেছেন। তাঁর প্রতিপক্ষ যে জেনেশুনে করোনাভাইরাসের ভয়াবহতার বিষয়টি এড়িয়ে যাচ্ছেন, সেটাই ছিল তাঁর বিবৃতির বিষয়বস্তু। সূত্র : এএফপি, সিএনএন।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা