kalerkantho

বুধবার । ৫ কার্তিক ১৪২৭। ২১ অক্টোবর ২০২০। ৩ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

পাবনা-৪ উপনির্বাচন

তিন ঘণ্টা না যেতেই ভোটের বাইরে বিএনপি

পাবনা প্রতিনিধি   

২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



তিন ঘণ্টা না যেতেই ভোটের  বাইরে বিএনপি

তখন ভোটের তিন ঘণ্টাও হয়নি। এর মধ্যেই ভোটের আগে নেতাকর্মীদের বাড়িতে পুলিশি তল্লাশি, গ্রেপ্তার ও নানা কারণ দেখিয়ে পাবনা-৪ (ঈশ্বরদী ও আটঘরিয়া) আসনের উপনির্বাচন বাতিলের দাবি তোলেন বিএনপি প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিব। অন্যদিকে পাল্টা সংবাদ সম্মেলন করে বিএনপির দাবি উড়িয়ে দেয় আওয়ামী লীগ। এভাবেই গতকাল শনিবার সহিংসতা ছাড়াই শেষ হয় এই উপনির্বাচন।

গত ২ এপ্রিল পাবনা-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামসুর রহমান শরীফ ডিলুর মৃত্যুর পর নির্বাচন কমিশন আসনটি শূন্য ঘোষণা এবং উপনির্বাচনের তফসিল দেয়। গতকাল অনুষ্ঠিত এই উপনির্বাচনে অংশ নেন আওয়ামী লীগ প্রার্থী নুরুজ্জামান বিশ্বাস, বিএনপি প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিব এবং জাতীয় পার্টির প্রার্থী রেজাউল করিম। সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত ১২৯ কেন্দ্রে টানা ভোটগ্রহণ চলে।

সকাল থেকে কিছু কেন্দ্রে ভোটার উপস্থিতি থাকলেও দিনের বেশির ভাগ সময় অধিকাংশ কেন্দ্রে অল্পসংখ্যক ভোটার উপস্থিতি চোখে পড়ে। ভোটার উপস্থিতি কম থাকলেও বেশির ভাগ কেন্দ্রে ৭০ থেকে ৭৫ শতাংশ, কোথাও বা এর চেয়েও বেশি ভোটার ভোট দিয়েছেন বলে প্রিসাইডিং অফিসাররা জানান। ভোট চলাকালে দুপুর পৌনে ১২টার দিকে বিএনপি প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিব সাহাপুর ইউনিয়নের মালিথাপাড়ায় নিজ বাড়িতে সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে এই নির্বাচনকে একতরফা উল্লেখ করে ভোট বাতিলের দাবি জানান। সংবাদ  সম্মেলনে হাবিব জানান, গত বুধবার সাহাপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের একটি নির্বাচনী অফিসে দুর্বৃত্তরা হামলা করে। এ ঘটনায় ঈশ্বরদীর বিএনপি নেতাকর্মীদের আসামি করে মামলা করা হয়। বিএনপির কোনো নেতাকর্মী এই হামলার সঙ্গে জড়িত নন দাবি করে হাবিব বলেন, তদন্ত না করেই পুলিশ বিএনপি নেতাকর্মীদের বাড়িতে তল্লাশির নামে গভীর রাতে হয়রানি ও গ্রেপ্তার করে। পরে আওয়ামী লীগ নেতারা পাবনা প্রেস ক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে বিএনপির এই দাবি প্রত্যাখ্যান করে।

প্রার্থী নিজেই ভোট দেননি : নির্বাচনে অংশ নিয়ে নিজেই ভোট দেননি বিএনপি প্রার্থী হাবিবুর রহমান হাবিব। গতকাল ভোট চলাকালে গণমাধ্যমকর্মীদের হাবিব বলেন, ‘কোনো আইন বা বিধি মেনে উপনির্বাচনে ভোট হচ্ছে না। এটাকে কোনো নির্বাচন বলা যায় না। যেহেতু এটা কোনো ভোট না, সে কারণে আমি ভোট দিতে যাইনি।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা