kalerkantho

মঙ্গলবার । ১১ কার্তিক ১৪২৭। ২৭ অক্টোবর ২০২০। ৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

তিতাসের বহিষ্কৃত আট কর্মকর্তা কর্মচারী রিমান্ডে

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি   

২০ সেপ্টেম্বর, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



তিতাসের বহিষ্কৃত আট কর্মকর্তা কর্মচারী রিমান্ডে

নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার পশ্চিম তল্লা এলাকার বাইতুস সালাত জামে মসজিদে ভয়াবহ বিস্ফোরণের ঘটনায় গ্রেপ্তার তিতাসের আট কর্মকর্তা-কর্মচারীকে দুই দিনের রিমান্ডে নিয়েছে অপরাধ তদন্ত বিভাগ (সিআইডি)। গতকাল শনিবার সকালে নারায়ণগঞ্জের বিভিন্ন এলাকা থেকে ওই আটজনকে গ্রেপ্তার করার পর বিকেলে অধিকতর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আদালতে হাজির করে পাঁচ দিনের রিমান্ড আবেদন করা হয়। দুই পক্ষের যুক্তিতর্ক শেষে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কাউসার আলমের আদালত তাঁদের দুই দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন। বিষয়টি কালের কণ্ঠকে নিশ্চিত করেছেন সিআইডির পরিদর্শক ও তদন্ত কর্মকর্তা বাবুল হোসেন। এর আগে মসজিদে বিস্ফোরণের ঘটনায় দায়িত্বে অবহেলার অভিযোগে গত ৭ সেপ্টেম্বর আট কর্মকর্তা-কর্মচারীকে সাময়িক বরখাস্ত করে তিতাস গ্যাস কর্তৃপক্ষ।

গ্রেপ্তার ব্যক্তিরা হলেন তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কম্পানি ফতুল্লা অঞ্চলের ব্যবস্থাপক প্রকৌশলী সিরাজুল ইসলাম, উপব্যবস্থাপক মাহামুদুর রহমান রাব্বী, সহকারী প্রকৌশলী এস এম হাসান শাহরিয়ার, সহকারী প্রকৌশলী মানিক মিয়া, সিনিয়র সুপারভাইজার মুনিবুর রহমান চৌধুরী, সিনিয়র উন্নয়নকারী আইউব আলী, হেলপার হানিফ মিয়া ও কর্মচারী ইসমাইল প্রধান।

গ্রেপ্তারকৃতদের রিমান্ডে নেওয়ার আগে শনিবার দুপুরে নারায়ণগঞ্জ সিআইডির কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে সিআইডির ডিআইজি মাঈনুল হাসান জানান, গতকাল সকালে সদর উপজেলার ফতুল্লার বিভিন্ন এলাকা থেকে তাঁদের গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি বলেন, ‘মসজিদে বিস্ফোরণের ঘটনায় তিতাসের সাময়িক বহিষ্কৃত আট কর্মকর্তা ও কর্মচারীর গাফিলতি থাকায় সাক্ষ্য-প্রমাণের ভিত্তিতে তাঁদের গ্রেপ্তার করা হয়।’ তিনি আরো বলেন, ‘মামলার তদন্তের কাজ চলমান রয়েছে। মসজিদ কমিটির গাফিলতি পাওয়া গেলে তাদেরও গ্রেপ্তার করা হবে।’

প্রসঙ্গত, গত ৪ সেপ্টেম্বর ফতুল্লার বাইতুস সালাত জামে মসজিদে ভয়াবহ বিস্ফোরণের ঘটনায় ৩৭ জন দগ্ধ হয়, যাঁদের মধ্যে এখন পর্যন্ত ৩৩ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ ছাড়া আইসিইউতে আশঙ্কাজনক অবস্থায় চিকিৎসাধীন তিনজন। আহতদের মধ্যে শুধু একজন সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন।

মন্তব্য