kalerkantho

শনিবার । ১৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ । ৩০  মে ২০২০। ৬ শাওয়াল ১৪৪১

যুক্তরাষ্ট্রে আরো পাঁচজনসহ ৩৫ বাংলাদেশির মৃত্যু

কালের কণ্ঠ ডেস্ক   

২ এপ্রিল, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



যুক্তরাষ্ট্রে আরো পাঁচজনসহ ৩৫ বাংলাদেশির মৃত্যু

ছবি: ইন্টারনেট

নভেল করোনাভাইরাসে (কভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে যুক্তরাষ্ট্রে আরো পাঁচ বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে নিউ ইয়র্কেই চারজন এবং নিউ জার্সিতে একজন রয়েছেন। এ নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রে এ পর্যন্ত ৩৫ বাংলাদেশির মৃত্যু হলো। মারা যাওয়া ব্যক্তিদের বেশির ভাগই নিউ ইয়র্কে মারা গেছেন।

এ ছাড়া আরো সাতটি দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে এ পর্যন্ত ১৯ জন প্রবাসী বাংলাদেশির মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। এর মধ্যে যুক্তরাজ্যে ১১ জন, ইতালি ও সৌদি আরবে দুজন করে এবং স্পেন, কাতার, লিবিয়া ও গাম্বিয়ায় একজন করে বাংলাদেশির মৃত্যু হয়েছে।

স্থানীয় সময় মঙ্গলবার নিউ ইয়র্কে মারা যাওয়া ব্যক্তিরা হলেন বিএনপির নেতা তানভীর হাসান, মুনিম চৌধুরী, নুসরাত মজুমদার ও সুরুজ খান। নিউ জার্সির প্যাটারসনে ৭২ বছর বয়সী এক নারীর মৃত্যু হয়েছে; তাঁর নাম জানা যায়নি।

বাংলাদেশ কনস্যুলেটে কর্মরত ব্যক্তি ও বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, নিউ ইয়র্কে দুই শর বেশি বাংলাদেশি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। তাঁদের একটি অংশ হাসপাতালের নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে ও বিশেষায়িত ওয়ার্ডে চিকিৎসাধীন। এর মধ্যে অন্তত পাঁচটি পরিবারের লোকজন আক্রান্ত হওয়ার পর সেরে উঠেছেন। আক্রান্ত হওয়া একাধিক চিকিৎসক সুস্থ হওয়ার সংবাদে চরম হতাশার মধ্যেও লোকজনের মধ্যে আশার সঞ্চার হচ্ছে।

অবরুদ্ধ হওয়ার পর নিউ ইয়র্ক কার্যত ভূতুড়ে নগরীতে পরিণত হয়েছে। করোনার বিরুদ্ধে লড়াইয়ে শক্ত ভূমিকা পালন করছেন নিউ ইয়র্কের গভর্নর অ্যান্ড্রু কুমো। নিজের ভাই সাংবাদিক ক্রিস কুমো করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন উল্লেখ করে তিনি বলেছেন, ‘আমরা সম্মিলিতভাবে এ লড়াইয়ে জয়ী হব।’ নাগরিকদের একই ধরনের আশাবাদের কথা শোনাচ্ছেন নগরীর মেয়র বিল ডি ব্লাজিও। 

আগামী ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত যুক্তরাষ্ট্রকে ‘লকডাউন’ ঘোষণা করে সামাজিক দূরত্ব মেনে চলার নির্দেশনা দিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প। তিনি আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন, আগামী দুই সপ্তাহে মৃত্যুর সংখ্যা ভয়াবহভাবে বাড়তে পারে। তবে ১ জুনের মধ্যে দেশ ঘুরে দাঁড়াবে বলে আশাবাদী তিনি।   

গতকাল বিকেল সাড়ে ৫টায় এ প্রতিবেদন লেখার সময় ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্য অনুযায়ী, যুক্তরাষ্ট্রে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা ছিল এক লাখ ৮৮ হাজার ৬৪৯ জন এবং মৃতের সংখ্যা চার হাজার ৫৯ জন। এর মধ্যে শুধু নিউ ইয়র্কেই ৭৫ হাজার ৯৪৩ জন আক্রান্ত এবং এক হাজার ৭১৪ জনের মৃত্যু হয়েছে।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা