kalerkantho

সোমবার  । ১৬ চৈত্র ১৪২৬। ৩০ মার্চ ২০২০। ৪ শাবান ১৪৪১

প্রাণের মেলা

এসেছে ইতিহাস রাজনীতির বই

আজিজুল পারভেজ   

২৩ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৬ মিনিটে



এসেছে ইতিহাস রাজনীতির বই

ইতিহাস, রাজনীতি, সমসাময়িক জাতীয় ও আন্তর্জাতিক বিষয়ে অনেকগুলো বই এসেছে এবারের অমর একুশে গ্রন্থমেলায়। এসব বইয়ে সময়কে ইতিহাসের প্রয়োজনে মলাটবন্দি করার পাশাপাশি, ইতিহাসকে নতুন আলোয় তুলে আনার প্রয়াস রয়েছে। সমসাময়িক রাজনীতি ও বিভিন্ন প্রসঙ্গে বিশিষ্টজনদের চিন্তামূলক লেখার সংকলন যেমন আছে, তেমনি আছে কিছু গবেষণামূলক গ্রন্থও।

ইতিহাসবিদ অধ্যাপক মুনতাসীর মামুনের মতে, ‘ইতিহাসের জগৎ বদলে গেছে। আমাদের এখানে যাঁরা ইতিহাসচর্চা করেন বিভিন্ন পর্যায়ে তাঁরা গত্বাঁধা রীতিতে চর্চা করেন, বিষয়বৈচিত্র্য প্রায় নেই, জগত্টাও সীমাবদ্ধ। সারা জগৎ যে এখন ইতিহাসের বিষয় সেটি মননে বিষয়বৈচিত্র্যে যেমন আসতে হবে, তেমনি ইতিহাসচর্চা ও গবেষণায়ও নতুন মাত্রা আনতে হবে।’

এবারের মেলায় এ পর্যন্ত যে তিন হাজার ৬৩২টি নতুন বই প্রকাশিত হয়েছে তার মধ্যে ইতিহাসের ৭২টি ও রাজনীতির ১২টি নতুন বই রয়েছে। গত বছর মেলায় এসেছিল ইতিহাসের ৭৭টি আর রাজনীতির ৩২টি গ্রন্থ।

মুনতাসীর মামুনের ইতিহাস বিষয়ক কয়েকটি বই এসেছে এবারের মেলায়। মাওলা ব্রাদার্স এনেছে ‘৬ দফা : স্বাধীনতার অভিযাত্রায় বঙ্গবন্ধু’, ‘১৯ শতকে পূর্ববঙ্গের সভা-সমিতি’ এনেছে সময় প্রকাশন। আর দুই খণ্ডে ‘ইতিহাস পাঠ’ প্রকাশ করেছে কথা প্রকাশ।

কথা প্রকাশ মেলায় আরো এনেছে বদরুদ্দীন উমরের ‘শতাব্দীর শুরুতে বাংলাদেশের চিত্র’, হাসান আজিজুল হকের রাজনীতি বিষয়ক লেখার সংকলন ‘রাজনীতির অলিগলি’, সেলিনা হোসেনের ‘পূর্ববঙ্গ থেকে বাংলাদেশ : রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ও শেখ মুজিবুর রহমান’, ড. কামাল হোসেনের লেখা ও মিজানুর রহমান খান অনূদিত ‘বাংলাদেশ : মুক্তি ও ন্যায়বিচারের সন্ধানে’ মেলায় এনেছে প্রথমা। এ প্রকাশনা আরো এনেছে সৈয়দ মনজুরুল ইসলামের ‘ইতিহাসের রূপকার তাজউদ্দীন আহমদ’, ‘মিঞ্চা অসমিয়া এনআরসি : আসামে জাতিবাদী বিদ্বেষ ও বাংলাদেশ’ এবং মাহবুব আলমের ‘বেগমের কূটনৈতিক মিশন ও অন্যান্য : ইতিহাসের বিস্মৃত সরস কাহিনী’।

সময় প্রকাশন মেলায় এনেছে রাজনীতি বিষয়ক বেশ কয়েকটি বই। এর মধ্যে আছে আবেদ খানের ‘ষড়যন্ত্রের জালে বিপন্ন রাজনীতি’, মুর্শিদা বিনেত রহমানের ‘কমিউনিস্ট পার্টিসমূহের দলিলপত্র : মস্কো ও চীনপন্থী’ এবং নূহ-উল-আলম লেনিনের ‘সময়ের ভাবনা : দর্শন-ভাবাদর্শ-রাজনীতি’।

রাজনীতি ও সমসাময়িক বিশ্ব পরিস্থিতি নিয়ে কয়েকটি বই বের করেছে মাওলা। ড. সুলতান মাহমুদের ‘বাংলাদেশ : রাজনৈতিক ঘটনাকোষ ২০১০-২০১৯’, কাবেদুল ইসলামের ‘প্রাচীন বাংলার রাজতান্ত্রিক জীবনচর্যা’, নাদিরা মজুমদারের ‘মধ্যপ্রাচ্যে কী হচ্ছে, জানেন?’ ও ‘আন্তর্জাতিক সমস্যা ও সমকালীন বিশ্ব রাজনীতি’।

সমসাময়িক বিশ্ব রাজনীতি নিয়ে অধ্যাপক তারেক শামসুর রেহমানের তিনটি বই প্রকাশ করেছে শোভা প্রকাশ। এগুলো হচ্ছে ‘চীন বিপ্লবের ৭০ বছর’, ‘ভারত মহাদেশ : ভারত-চীন দ্বন্দ্ব’ ও ‘ইরান সংকট ও উপসাগরীয় রাজনীতি’।

আবুল কাশেম ফজলুল হকের ‘জাতীয়তাবাদ আন্তর্জাতিকতাবাদ বিশ্বায়ন ও ভবিষ্যৎ’ প্রকাশ করেছে পুঁথিনিলয়। সিত্তুল মুনা হাসানের ‘সাম্রাজ্যবাদের রাজনৈতিক দর্শন ও সাম্প্রতিক বিশ্ব’ প্রকাশ করেছে শোভা প্রকাশ। মহিউদ্দীন খান আলমগীরের ‘দৃষ্টিপাত ২০১৯’ এনেছে সুবর্ণ। ডা. সাইদ হায়দারের ‘উপমহাদেশে বিভাজনের রাজনীতি : বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ’ এনেছে কাকলী প্রকাশনী। ড. মোহাম্মদ হান্নানের ‘বাংলাদেশের ছাত্র আন্দোলনের ইতিহাসে শেখ হাসিনার ঐতিহাসিক সময়’ প্রকাশ করেছে আগামী। সোহরাব হাসানের ‘২০১৮ : নির্বাচনের আগে-পরে’ প্রকাশ করেছে অন্যধারা। নঈম নিজামের সাম্প্রতিক প্রসঙ্গের সংকলন ‘রানি ভিক্টোরিয়া ও করিম কাহিনী’ এনেছে অন্বেষা। সংবেদ প্রকাশ করেছে লোপা মমতাজের ‘ইতিহাসের ফুটনোট : দ্বিরালাপে সমাজ সংস্কৃতি সাহিত্য ও রাজনীতি’।

অধ্যাপক আবু সাইয়িদের ‘দিনলিপি বঙ্গবন্ধুর শাসন সময় ১৯৭৩’, আসিফ নজরুলের ‘আওয়ামী আমল : ২০১৪-২০১৯’ ও সুভাষ সিংহ রায়ের ‘জাতিসংঘে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা’ মেলায় প্রকাশ করেছে অনন্যা।

ঐতিহ্য এনেছে নজরুল সৈয়দের গবেষণা গ্রন্থ ‘নভেম্বর ১৯৭৫’ ও মনজুরুল হক সম্পাদিত ‘আসাম : এনআরসি, ভারতের বিতর্কিত সিদ্ধান্ত ও বাংলাদেশ’।

নির্বাচিত চার বই

‘ইতিহাস পাঠ’ : ইতিহাস গবেষণার বিষয় যে কত বৈচিত্র্যময় হতে পারে সে বিষয়টি তুলে আনার জন্য ‘ইতিহাস পাঠ’ সংকলন করেছেন ইতিহাসবিদ মুনতাসীর মামুন। গত তিন-চার দশকে বাংলাদেশ ও পশ্চিমবঙ্গে বাংলা ভাষায় প্রকাশিত প্রবন্ধাবলি নিয়েই এই সংকলন। কয়েক খণ্ডে প্রকাশিত হবে এ সংকলন। এবার এসেছে দুই খণ্ড। ‘গ্রাম বাংলা : উনিশ শতক’, ‘রেভান্ডে উইলিয়াম কেরির চিঠিপত্রে বাংলার গ্রাম’, ‘ইতিহাসের প্রেক্ষাপটে গ্রাম : বাংলার লৌকিক জানজীবন’সহ বেশ কয়েকটি বিষয় স্থান পেয়েছে এই সংকলনে।  প্রতিটি সংকলনের মূল্য ৫০০ টাকা।

‘পূর্ববঙ্গ থেকে বাংলাদেশ : রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর ও শেখ মুজিবুর রহমান’ : কথাশিল্পী সেলিনা হোসেনের একটি ভিন্নধর্মী বই। রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর তাঁর বিভিন্ন রচনায় কতভাবে পূর্ববঙ্গকে চিত্রিত করেছেন তা এক মহিমময় চিন্তা। বঙ্গবন্ধু এই পূর্ববঙ্গকে স্বাধীনতার আলোক শিখায় জ্যোতির্ময় করেছেন। পূর্ববঙ্গ নিয়ে দুই বরেণ্য ব্যক্তির চিন্তার অনুভবকে এখানে উপস্থাপন করা হয়েছে ভিন্ন আঙ্গিকে। বইটির মূল্য ৪০০ টাকা।

‘ভারত মহাদেশ : ভারত-চীন দ্বন্দ্ব’ : আন্তর্জাতিক রাজনীতিতে ভারত মহাসাগর ক্রমশই গুরুত্বপূর্ণ হয়ে উঠছে। একদিকে চীন ও ভারত, অন্যদিকে যুক্তরাষ্ট্র— এই তিন দেশের কাছে ভারত মহাসাগর গুরুত্বপূর্ণ। চীন ও ভারতের মধ্যকার দ্বন্দ্ব, দ্বন্দ্বের পরিণতি, বিভিন্ন তথ্য ও উপাত্তের মাধ্যমে তুলে ধরেছেন অধ্যাপক তারেক শামসুর রেহমান। বইটির দাম ৩৫০ টাকা।

‘বাংলাদেশ : মুক্তি ও ন্যায়বিচারের সন্ধানে’ : খ্যাতিমান আইনজীবী ও রাজনীতিবিদ ড. কামাল হোসেনের ‘বাংলাদেশ : কোয়েস্ট ফর ফ্রিডম অ্যান্ড জাস্টিস’ নামের বইটির অনুবাদ গ্রন্থ এটি। আগরতলা ষড়যন্ত্র মামলায় বঙ্গবন্ধুর আইনজীবী, ষাটের দশকের বাংলাদেশ আন্দোলনে বঙ্গবন্ধুর অন্যতম রাজনৈতিক সহযোগী কামাল হোসেনের এই বইটি ঐতিহাসিক কালপর্বের বস্তুনিষ্ঠ দলিল। বইটির মূল্য ৭০০ টাকা।

গতকালের মেলা : গতকাল শনিবার অমর একুশে গ্রন্থমেলার ২১তম দিনটি ছিল সাপ্তাহিক ছুটির দিন। সকালে মেলায় ছিল শিশুপ্রহর। সকাল থেকেই বিপুল জনসমাগম ছিল মেলায়। মেলায় এসেছে ২৪২টি নতুন বই।

গতকালও একটি প্রতিবাদ দেখা গেল মেলায়। জনৈক আমলাকে সাহিত্যে স্বাধীনতা পদক এবং জনৈক প্রবাসীকে ভাষা-সাহিত্যে একুশে পদক দেওয়ার প্রতিবাদ জানিয়েছেন প্রবাসী কবি সাইফুল্লাহ মাহমুদ দুলাল।

বিকেলে ছিল শামসুজ্জামান খান সম্পাদিত বঙ্গবন্ধুর ৭ই মার্চের ভাষণ : বহুমাত্রিক বিশ্লেষণ শীর্ষক আলোচনা। প্রবন্ধ পাঠ করেন মফিদুল হক। আলোচনায় অংশগ্রহণ করেন ড. সোনিয়া নিশাত আমিন, গোলাম কুদ্দুছ ও মামুন সিদ্দিকী। সভাপতিত্ব করেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য ড. মুহাম্মদ সামাদ।

লেখক বলছি অনুষ্ঠানে নিজেদের নতুন বই নিয়ে আলোচনা করেন সলিমুল্লাহ খান, আহমাদ মোস্তফা কামাল, সাখাওয়াত টিপু ও চঞ্চল আশরাফ। কবিকণ্ঠে কবিতা পাঠ করেন কবি অসীম সাহা, মুহাম্মদ সামাদ, মাশুক চৌধুরী, ফরিদ কবির, সাইফুল্লাহ মাহমুদ দুলাল, মানিক মোহাম্মদ রাজ্জাক, পিয়াস মজিদ ও আলতাফ শাহনেওয়াজ। সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে মো. আনোয়ার হোসেনের পরিচালনায় ‘আরশিনগর বাউল সংঘের’ পরিবেশনা।

আজ বিকেল ৪টায় অনুষ্ঠিত হবে মুর্শিদা বিনেত রহমান রচিত স্বাধীনতার পথে বঙ্গবন্ধু : পরিপ্রেক্ষিত ১৯৭০-এর নির্বাচন শীর্ষক আলোচনা অনুষ্ঠান।

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা