kalerkantho

শুক্রবার। ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৭। ৪ ডিসেম্বর ২০২০। ১৮ রবিউস সানি ১৪৪২

প্রকাশকের মেলা

রবীন্দ্রসমগ্র নিয়ে পাঠক সমাবেশের এগিয়ে চলা

সহিদুল ইসলাম বিজু

২১ ফেব্রুয়ারি, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



রবীন্দ্রসমগ্র নিয়ে পাঠক সমাবেশের এগিয়ে চলা

বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী প্রকাশনা সংস্থা পাঠক সমাবেশ। বইমনস্ক জাতি ও মানুষকে বইমুখী করার লক্ষ্য নিয়ে এ প্রতিষ্ঠানের  যাত্রা শুরু ১৯৮৭ সালে। প্রতিষ্ঠার পর থেকেই এ প্রতিষ্ঠান ভিন্নধর্মী বই প্রকাশ ও বিপণনের ক্ষেত্রে যুগান্তকারী নানা পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। বিভিন্ন চড়াই-উতরাই থাকলেও প্রকাশনাজগতে নিজের অবস্থান সুদৃঢ় করেছে। প্রতিষ্ঠানের প্রধান হিসেবে শুধু বই প্রকাশনা নয়, বইয়ের বিপণন নয়; পাশাপাশি পাঠক সৃষ্টিতেও নানা উদ্যোগ গ্রহণ করেছি। বইমুখী সমাজ ও জাতি গঠনে নানা কাজ করেছি। বই নিয়ে আমাদের এ আন্দোলনের অনুপ্রেরণা হয়ে আছেন রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর। আমরা ‘রবীন্দ্রসমগ্র’ শিরোনামের যে ২৫ খণ্ড প্রকাশ করেছি, সেটি বাংলাদেশ-ভারত শুধু নয়, সারা বিশ্বে বাংলা ভাষার পাঠক ও গবেষকদের কাছে সমাদৃত হয়েছে।

কবিগুরু রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের সার্ধশততম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে ২৫ খণ্ডে ‘রবীন্দ্রসমগ্র’ প্রকাশের উদ্যোগ নিয়েছিলাম। রবীন্দ্রনাথের সব সৃষ্টিকর্মকে একত্রে প্রকাশ করাই সুবিশাল সংগ্রহটির লক্ষ্য। রবীন্দ্রসমগ্রে কবির প্রকাশিত-অপ্রকাশিত সব সৃষ্টিকর্মই স্থান পেয়েছে। বিশ্বভারতীর রচনাবলির বাইরেও এতে রয়েছে ‘ছিন্নপত্র’, ‘ভানুসিংহের পদাবলী’, ‘বৈকালী’সহ আরো ২১০টি নতুন কবিতা। আরো রয়েছে স্ত্রীকে লেখা পত্রগুচ্ছ, অগ্রন্থিত নাটিকা ‘ভৈরবের বলি’ ইত্যাদি। এ ছাড়া রবীন্দ্রনাথের সব ইংরেজি লেখাও এতে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছে। রয়েছে কবির হস্তাক্ষর, পাণ্ডুলিপি, ছবির অ্যালবাম, চিত্রকলা ইত্যাদি। আমার দৃঢ় বিশ্বাস, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের সব সৃষ্টিকর্মই এতে স্থান পেয়েছে।

‘রবীন্দ্রসমগ্র’ নিয়ে কাজ করতে গিয়ে রীতিমতো আমাদের গবেষণা করতে হয়েছে। দিনের পর দিন, বছরের পর বছর পরিশ্রম করতে হয়েছে। আমাদের পরিশ্রম সার্থক হয়েছে। ২৫ খণ্ডে আমরা যে ‘রবীন্দ্রসমগ্র’ প্রকাশ করেছি, তা বাংলাদেশ ও ভারতে ব্যাপকভাবে সমাদৃত হয়েছে। কাগজ, বাঁধাই, অলংকরণসহ একসঙ্গে কবিগুরুর সব সৃষ্টিকর্ম নির্ভুল ও নিখুঁতভাবে আর কেউ প্রকাশ করেনি। একসঙ্গে ২৫ খণ্ডের (হার্ড কাভার) দাম রাখা হয়েছে ৪৫ হাজার টাকা। বইমেলায় তা ২৫ শতাংশ কমিশনে কেনা যাবে ৩৩ হাজার টাকায়। আবার চাইলে কেউ আলাদা খণ্ডও কিনতে পারবেন। অনেক পাঠকের জন্য এ দাম একটু বেশি। ফলে আমরা প্রকাশ করেছি পেপার ব্যাক সংস্করণ। এই সংস্করণের দাম তুলনামূলক অনেক কম। এই সুলভ সংস্করণের দাম ২৫ হাজার টাকা। ২৫ শতাংশ কমিশনে কেনা যাবে ১৮ হাজার টাকায়।

প্রথাগতভাবে আমরা রবীন্দ্র রচনাবলি প্রকাশ করিনি। এ কাজটির মাধ্যমে আমার দীর্ঘদিনের স্বপ্ন যেমন পূরণ হয়েছে, তেমনি রবীন্দ্রপ্রেমী পাঠক ও গবেষকদের কাজও সহজ হয়েছে।

বইমেলায় পাঠক সমাবেশ প্রথম অংশ নেয় ১৯৯০ সালে। বইমেলায় অংশগ্রহণে আমাদের অভিজ্ঞতা তিন দশকের। এই দীর্ঘ কালযাত্রায় আমরা লক্ষ করেছি, বাঙালির প্রাণের উৎসব অমর একুশে গ্রন্থমেলা দিনকে দিন আরো সুন্দর ও পরিপাটি হচ্ছে। দিনকে দিন বাড়ছে মেলার পরিসর। আয়োজক বাংলা একাডেমি ও সংস্কৃতি মন্ত্রণালয় এ বিষয়ে খুবই আন্তরিক। এ ছাড়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা একজন লেখক ও সংস্কৃতিমনা মানুষ। তাঁর উদারতা ও উদ্যোগের কারণেই গ্রন্থমেলা সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে স্থানান্তর হয়েছে। এ জন্য প্রকাশক হিসেবে আমরা বইবান্ধব প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে কৃতজ্ঞ।

লেখক : প্রকাশক, পাঠক সমাবেশ

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা