kalerkantho

রবিবার । ৪ ডিসেম্বর ২০২২ । ১৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ । ৯ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

মুসলিম সংস্কৃতি

সকাল সকাল কাজে যাওয়া

মো. আবদুল মজিদ মোল্লা   

২০ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



সকাল সকাল কাজে যাওয়া

সকালের ঘুম শহুরে সংস্কৃতির অবিচ্ছেদ্য অংশে পরিণত হয়েছে। অথচ চিকিৎসকরা বলেন, সকালের মানুষের শারীরিক ও মানসিক নানা সংকট তৈরি করে, এমনকি মানুষের মৃত্যুঝুঁকি বাড়িয়ে দেয়। একইভাবে সকালের ঘুমের কারণে প্রতিদিন যে পরিমাণ কর্মঘণ্টা নষ্ট তা জাতীয় উন্নয়নে বিরূপ প্রভাব ফেলে। ইসলাম মানুষকে সকাল সকাল ওঠার নির্দেশ দেয়।

বিজ্ঞাপন

মুসলিম সমাজের রীতি ও সংস্কৃতি হলো তারা ফজরের নামাজের মাধ্যমে দিন শুরু করে এবং সকাল সকাল কর্মস্থলে যোগদান করে। সকালবেলার গুরুত্ব বোঝাতে মহান আল্লাহ সকালের শপথ করে বলেছেন, ‘উষাকালের শপথ! যখন তা আবির্ভূত হয়। ’ (সুরা তাকভির, আয়াত : ১৮)

সকালে কাজ শুরু করব কেন? : রাসুলুল্লাহ (সা.) সকালকে এই উম্মতের জন্য বরকতময় করার দোয়া করেছেন। সুতরাং সকালে কাজ শুরু করলে বরকত পাওয়া যাবে। তিনি বলেছেন, ‘হে আল্লাহ! আমার উন্মাতের ভোরবেলাতে তাদেরকে বরকত ও প্রাচুর্য দান করুন। ’ (সুনানে তিরমিজি, হাদিস : ১২১২)

নবীজি (সা.) ও সাহাবাদের অভ্যাস : উল্লিখিত হাদিসের বর্ণনাকারী বলেন, যখন রাসুলুল্লাহ (সা.) কোথাও কোনো ক্ষুদ্র অথবা বৃহৎ বাহিনী পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিতেন, তখন তাদেরকে দিনের প্রথম অংশেই পাঠাতেন। বর্ণনাকারী সাখর (রা.) ছিলেন একজন ব্যবসায়ী। তিনি কোথাও তার ব্যবসায়ী কাফেলা পাঠানোর ইচ্ছা করলে তাদেরকে দিনের প্রথম অংশেই পাঠাতেন। ফলে তিনি বিপুল সম্পদের মালিক হন। (সুনানে তিরমিজি, হাদিস : ১২১২)

জীবিকা বণ্টনের সময় : সকালবেলা জীবিকা বণ্টনের সময়। সুতরাং যে ঘুমিয়ে বা অন্যভাবে সকালের যতটুকু সময় নষ্ট করবে, সে ততটা জীবিকা থেকে বঞ্চিত হবে। আবদুল্লাহ ইবনে আব্বাস (রা.) তাঁর এক ছেলেকে সকালে ঘুমাতে দেখে বলেন, উঠো! তুমি কি এমন সময় ঘুমাবে যখন জীবিকাগুলো বণ্টিত হয়। (আল-আদাবুশ শরইয়্যা, পৃষ্ঠা ১৪৭)

সকাল ঘুম নয়, কাজের সময় : আল্লাহ রাতকে বিশ্রামের জন্য এবং দিনকে কাজের জন্য নির্ধারণ করেছেন। কেননা তিনি রাতকে বিশ্রামের এবং দিনকে কাজ করার উপযোগী করেছেন। আর সকাল যেহেতু দিনের অংশ তাই তখন ঘুমানো উচিত নয়। পবিত্র কোরআনে ইরশাদ হয়েছে, ‘তিনিই তাঁর দয়ায় তোমাদের জন্য করেছেন রাত ও দিন, যেন তাতে তোমরা বিশ্রাম করতে পারো এবং তাঁর অনুগ্রহ সন্ধান করতে পারো। আর কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করো। ’ (সুরা কাসাস, আয়াত : ৭৩)

মুফাসসিরগণ উল্লিখিত আয়াতের ব্যাখ্যায় বলেন, এখানে অনুগ্রহ অনুসন্ধান দ্বারা জীবিকার অনুসন্ধান উদ্দেশ্য এবং তার সম্পর্ক আয়াতে উল্লিখিত দিনের সঙ্গে। (তাফসিরে ইবনে কাসির)

সকালের ঘুমে তিন ক্ষতি : সকালের ঘুমের ব্যাপারে সতর্ক করে ওমর ইবনুল খাত্তাব (রা.) বলেন, ‘তোমরা সকালের ঘুম থেকে বেঁচে থাকবে। কেননা তা জ্বরের প্রকোপ বাড়ায়, যৌন ক্ষমতা কমায় এবং শারীরের সজীবতা নষ্ট করে। ’ (আন-নিহায়াতু ফি গারিবিল আহাদিস)

আল্লাহ সবাইকে ফজরের নামাজ আদায়ান্তে জীবিকার অনুসন্ধান করার তাওফিক দিন। আমিন।

 



সাতদিনের সেরা