kalerkantho

শনিবার । ৯ শ্রাবণ ১৪২৮। ২৪ জুলাই ২০২১। ১৩ জিলহজ ১৪৪২

প্রশ্ন-উত্তর

২৭ মার্চ, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



কোনো অর্জনে খুশি হয়ে উৎসব করা

প্রশ্ন : পরীক্ষায় উত্তীর্ণ, চাকরি পাওয়া কিংবা সন্তান হওয়ার আনন্দে উৎসব করার বিধান কী? এ ব্যাপারে ইসলাম কি অনুৎসাহী করেছে?

—সেলিম, মাদারীপুর।

উত্তর : ইসলাম ধর্মে উৎসবের অর্থই হচ্ছে আল্লাহ তাআলার শোকর বা কৃতজ্ঞতা প্রকাশ। তাই পরীক্ষায় পাস, চাকরি হওয়া, সন্তান হলে ইত্যাদি খুশির সংবাদে আল্লাহ তাআলার শোকর বা কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করা প্রয়োজন। এসব আনন্দের সময় শরিয়ত পরিপন্থী কোনো কাজ না হলে খানাপিনার আয়োজন করে আত্মীয়-স্বজন বা বন্ধু-বান্ধবকে দাওয়াত করাও জায়েজ আছে। (সুরা : ইব্রাহিম : ৭, আবু দাউদ : ২/৮৩, ফাতাওয়ায়ে মুফতি মাহমুদ : ১০/৪৩৭)

 

গোসলখানায় দোয়া পড়ার বিধান

প্রশ্ন : আমাদের দেশে বহু স্থানে দেখা যায় বাথরুম ও অজুখানা একই রুমে। আমার প্রশ্ন হলো, এ রকম রুমে অজু করার সময় বিসমিল্লাহ ও অন্যান্য দোয়া পড়ার বিধান কী?

—আব্দুল আউয়াল, ফেনী।

উত্তর : দুর্গন্ধময় স্থানে আল্লাহর জিকির করা মাকরুহ। সুতরাং বর্তমান জমানায় যেসব গোসলখানা ও টয়লেট এক সঙ্গে হয় সেগুলো যদি পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন হয় এবং কোনো ময়লা বা দুর্গন্ধ না থাকে তাহলে তাতে বিসমিল্লাহ ও অজুর অন্যান্য দোয়া পড়া যাবে। (ফাতাওয়ায়ে নাওয়াজেল : ২২, তুহফাতু আলমায়ী : ১/২০২)

 

অজুতে গর্দান মাসেহ করার বিধান

প্রশ্ন : অজুর মধ্যে গর্দান মাসেহ করা মুস্তাহাব না বিদআত?

—রিদওয়ান, লালমাটিয়া।

উত্তর : অজুর মধ্যে গর্দান মাসেহ করা হাদিস দ্বারা মুস্তাহাব বলে প্রমাণিত, বিদআত নয়। (মুসনাদে আহমদ : ১২/৩৮৫, আবু দাউদ : ১/১৮)

 

মেঝেতে বসতে অক্ষম ব্যক্তির চেয়ারে নামাজ পড়া

প্রশ্ন : আমি একজন মাজুর মানুষ। আমার বয়স ৭২ বছর। অনেক বছর ধরে কোমর ব্যথা। সময় যত যায় ব্যথা তত বৃদ্ধি পেতে থাকে এবং ব্যথা নিচের দিকে নিম্নাংশে রান, হাঁটু, পায়ের থোরায়। এক সেকেন্ডের জন্য ফ্লোরে বসতে পারি না, বসার চেষ্টা করলে পড়ে যাই। তখন অন্যের সাহায্য ছাড়া পায়ের ওপর ভর করে উঠতে পারি না। নামাজ পড়ার সময় চেয়ারে বা টুলে একনাগাড়ে বসে নামাজ শেষ করতে পারি না। কোমর ব্যথায় শরীর দুর্বল হয়ে যায়। তাই কিয়াম ও বৈঠকের সময় টুলে বসে ইশারায় সিজদা করে নামাজ শেষ করতে হয়, ফ্লোরে সিজদা করতে পারি না। এমন অবস্থায় আমি যেভাবে নামাজ আদায় করি তা শরীয়তসম্মত কি না?

—শেখ মেহেদী, খুলনা।

উত্তর : প্রশ্নে বর্ণিত পদ্ধতিতে মাজুর ব্যক্তি চেয়ারে বসে ইশারায় রুকু-সিজদা করে নামাজ পড়লে তার নামাজ আদায় হয়ে যাবে। একনাগাড়ে বসতে কষ্ট হলে কিছুক্ষণ দাঁড়াতেও পারবে। (আদ্দুররুল মুখতার : ২/৯৫-৯৬, ৯৭-৯৮, আল বাহরুর রায়েক : ২/১৯৯, আপকে মাসায়েল আওর উনকা হল : ৩/৫৮৭)

 

সমাধান : ইসলামিক রিসার্চ সেন্টার বাংলাদেশ, বসুন্ধরা, ঢাকা।

 



সাতদিনের সেরা