kalerkantho

মঙ্গলবার  । ২০ শ্রাবণ ১৪২৭। ৪ আগস্ট  ২০২০। ১৩ জিলহজ ১৪৪১

হাদিসের শিক্ষা

১২ জুলাই, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ৩ মিনিটে



হাদিসের শিক্ষা

নামাজের জামাতে দুর্বলদের কথা ভাবতে হবে

আবু মাসউদ আনসারি (রা.) বলেন, একদা জনৈক ব্যক্তি বলল, ‘হে আল্লাহর রাসুল! আমি সালাতে (জামাতে) শামিল হতে পারি না। কারণ অমুক ব্যক্তি আমাদের নিয়ে খুব দীর্ঘ সালাত আদায় করেন। [আবু মাসউদ (রা.) বলেন,] আমি নবী (সা.)-কে কোনো নসিহতের মজলিসে সেদিনের তুলনায় অধিক রাগান্বিত হতে দেখিনি। (রাগত স্বরে) তিনি বলেন, হে লোক সকল! তোমরা মানুষের মধ্যে বিরক্তির সৃষ্টি করো। অতএব যে লোকদের নিয়ে সালাত আদায় করবে সে যেন সংক্ষেপ করে। কারণ তাঁদের মধ্যে রোগী, দুর্বল ও কর্মব্যস্ত লোকও থাকে। (বুখারি, হাদিস : ৯০)

 

কুড়িয়ে পাওয়া জিনিসের বিধান

জায়দ ইবনে খালেদ আল-জুহানি (রা.) থেকে বর্ণিত, জনৈক ব্যক্তি রাসুল (সা.)-কে কুড়িয়ে পাওয়া জিনিস সম্পর্কে জিজ্ঞেস করলে তিনি বলেন, তাঁর বাঁধনের রশি বা থলে-ঝুলি ভালো করে চিনে রাখো। অতঃপর এক বছর পর্যন্ত তার ঘোষণা দিতে থাকো। তারপর (মালিক পাওয়া না গেলে) তুমি তা ব্যবহার করো। অতঃপর যদি এর প্রাপক আসে তবে তাকে তা দিয়ে দেবে। সে বলল, ‘হারানো উটের ব্যাপারে কী করতে হবে?’ এ কথা শুনে আল্লাহর রাসুল (সা.) এমন রাগ করলেন যে তাঁর গাল দুটো লাল হয়ে গেল। অথবা বর্ণনাকারী বলেন, তাঁর মুখমণ্ডল লাল হয়ে গেল। তিনি বলেন, ‘উট নিয়ে তোমার কী হয়েছে? তার তো আছে পানির মশক ও শক্ত পা। পানির কাছে যেতে পারে এবং গাছ খেতে পারে। কাজেই তাকে ছেড়ে দাও এমন সময়ের মধ্যে তার মালিক তাকে পেয়ে যাবে।’ সে বলল, ‘হারানো ছাগল পাওয়া গেলে?’ তিনি বলেন, ‘সেটি তোমার হবে, না হলে তোমার ভাইয়ের, না হলে বাঘের।’ (বুখারি, হাদিস : ৯১)

 

কাউকে অবান্তর প্রশ্ন করা যাবে না

আবু মুসা (রা.) বলেন, একদা নবী (সা.)-কে কয়েকটি অপছন্দনীয় বিষয় সম্পর্কে জিজ্ঞেস করা হলো। প্রশ্নের সংখ্যা অধিক হয়ে যাওয়ায় তখন তিনি রেগে গিয়ে লোকদের বলেন, ‘তোমরা আমার কাছে যা ইচ্ছা প্রশ্ন করো।’ জনৈক ব্যক্তি বলল, ‘আমার পিতা কে?’ তিনি বলেন, ‘তোমার পিতা হুজাফাহ।’ আর এক ব্যক্তি দাঁড়িয়ে বলল, ‘হে আল্লাহর রাসুল! ‘আমার পিতা কে?’ তিনি বলেন, ‘তোমার পিতা হলো শায়বার দাস সালেম।’ তখন ওমর (রা.) আল্লাহর রাসুল (সা.)-এর চেহারার অবস্থা দেখে বলেন, ‘হে আল্লাহর রাসুল! আমরা মহিমান্বিত আল্লাহর কাছে তাওবা করছি।’ (বুখারি, হাদিস : ৯২)

 

 

মন্তব্য