kalerkantho

রবিবার । ২১ আষাঢ় ১৪২৭। ৫ জুলাই ২০২০। ১৩ জিলকদ  ১৪৪১

সূর্যের চারপাশে পৃথিবীর ঘোরা নিয়ে প্রথম চিন্তা মুসলমানদের

৭ জুন, ২০২০ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সূর্যের চারপাশে পৃথিবীর ঘোরা নিয়ে প্রথম চিন্তা মুসলমানদের

যে সময় বিশ্বে কেউ কল্পনাও করতে পারত না যে পৃথিবী হলো গোলাকার; ভূ-গোলকের নিজ কক্ষপথে ঘূর্ণায়মানতার বিষয়ে কেউ আলোচনাও করত না, সেই সময়ে খ্রিস্টীয় ত্রয়োদশ শতাব্দীতে (হিজরি সপ্তম শতাব্দীতে) তিনজন মুসলিম বিজ্ঞানী পৃথিবীর ঘূর্ণায়মানতা ও আবর্তনের বিষয়টিকে আলোচনায় নিয়ে আসেন। তাঁরা হলেন কাজভিনের আলী ইবনে উমর আল-কাতিবি, আন্দালুসের কুতবুদ্দিন আশ-শিরাজি ও সিরিয়ার আবুল ফারজ আলী। মানবেতিহাসে তাঁরাই প্রথমবার পৃথিবী যে নিজ কক্ষপথে সূর্যের সামনে প্রতি দিনে-রাতে একবার ঘোরে সেই সম্ভাবনার দিকে ইঙ্গিত করেন। এই তিন বিজ্ঞানী সম্পর্কে জর্জ সার্টন বলেন, ‘ত্রয়োদশ শতাব্দীতে এই তিনজন বিজ্ঞানী যে গবেষণা করেন, তা বিফলে যায়নি। বরং তা নিকোলাস কোপার্নিকাসের গবেষণায় অন্যতম অনুঘটক হিসেবে প্রভাব রেখেছে। এই গবেষণা থেকেই কোপার্নিকাস ১৫৪৩ খ্রিস্টাব্দে তাঁর (পৃথিবীর ঘূর্ণায়মানতার) তাত্ত্বিক কাঠামো প্রকাশ করেন।’ (জর্জ সার্টন, Introduction to the History of Science, খণ্ড ১, পৃষ্ঠা ৪৬)

জর্জ সার্টন (George Sarton, ১৮৮৪-১৯৫৬ খ্রিস্টাব্দ) : বিশ্বের গুরুত্বপূর্ণ ইতিহাসবেত্তাদের অন্যতম। বেলজিয়াম বংশোদ্ভূত আমেরিকান। রসায়নবিদ, প্রকৃতিবিজ্ঞানী ও গণিতজ্ঞ। ১৯১৯ থেকে ১৯৪৮ সাল পর্যন্ত তিনি কার্নেগি ইনস্টিটিউট অব ওয়াশিংটনে গবেষণা সহকারী ছিলেন। আমেরিকার বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ে বক্তৃতা দিয়েছেন,  বৈরুতের আমেরিকান বিশ্ববিদ্যালয়েও বক্তৃতা দিয়েছেন। তাঁর বিখ্যাত গ্রন্থ আ হিস্ট্রি অব সায়েন্স।

তথ্য সংগ্রহ : আব্দুস সাত্তার আইনি

মন্তব্য