kalerkantho

বৃহস্পতিবার ।  ১৯ মে ২০২২ । ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ । ১৭ শাওয়াল ১৪৪৩  

পুঁজিবাজারে সপ্তাহের শেষ দিন দরপতন

বাণিজ্য ডেস্ক   

২৮ জানুয়ারি, ২০২২ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস গতকাল বৃহস্পতিবার শেয়ারবাজারে দরপতন হয়েছে। দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) এবং অপর শেয়ারবাজার চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জেও (সিএসই) মূল্যসূচকের পতন ঘটেছে। এই পতনের বাজারেই দাম বাড়ার সর্বোচ্চ সীমা স্পর্শ করেছে সাত কম্পানির শেয়ার।

গতকাল ডিএসইতে লেনদেন শুরু হয় বেশির ভাগ প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিটের দাম বাড়ার মাধ্যমে।

বিজ্ঞাপন

ফলে লেনদেন শুরু হতেই প্রধান মূল্যসূচক ডিএসই-এক্স ১০ পয়েন্ট বেড়ে যায়। লেনদেনের ১৯ মিনিটের মাথায় সূচকটি ২৩ পয়েন্ট বেড়ে যায়।

লেনদেনের শুরুতে দেখা দেওয়া এই ঊর্ধ্বমুখী প্রবণতা প্রথম আড়াই ঘণ্টার লেনদেনে অব্যাহত থাকে। কিন্তু দুপুর ১টার পর থেকে বদলে যেতে থাকে চিত্র। দরপতন হতে থাকে একের পর এক প্রতিষ্ঠানের। লেনদেনের শেষ পর্যন্ত পতনের এই ধারা অব্যাহত থাকে। ফলে সূচকের পতন দিয়েই দিনের লেনদেন শেষ হয়।

দিনের লেনদেন শেষে ডিএসইর প্রধান সূচক ডিএসই-এক্স আগের দিনের তুলনায় ৪ পয়েন্ট কমে ৭ হাজার ২৭ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে। অন্য দুই সূচকের মধ্যে বাছাই করা ভালো কম্পানি নিয়ে গঠিত ডিএসই-৩০ সূচক ৯ পয়েন্ট কমে ২ হাজার ৬০২ পয়েন্টে অবস্থান করছে। আর ডিএসই শরিয়াহ সূচক আগের দিনের তুলনায় ৪ পয়েন্ট কমে ১ হাজার ৪৯৯ পয়েন্টে দাঁড়িয়েছে।

দিনভর ডিএসইতে লেনদেন হয়েছে এক হাজার ২১৯ কোটি টাকা। আগের দিন লেনদেন হয় এক হাজার ১১৫ কোটি ৭৮ লাখ টাকা। সে হিসাবে লেনদেন বেড়েছে ১০৩ কোটি ২২ লাখ টাকা।

ডিএসইতে দাম বাড়ার তালিকায় নাম লিখিয়েছে ১৪২টি প্রতিষ্ঠানের শেয়ার ও ইউনিট। বিপরীতে দাম কমেছে ১৮৪টির। আর ৫৫টির দাম অপরিবর্তিত রয়েছে। দাম বাড়ার তালিকায় স্থান করে নেওয়া কম্পানিগুলোর মধ্যে সাতটির শেয়ার দিনের দাম বাড়ার সর্বোচ্চ সীমা স্পর্শ করে।



সাতদিনের সেরা