kalerkantho

সোমবার । ১৮ শ্রাবণ ১৪২৮। ২ আগস্ট ২০২১। ২২ জিলহজ ১৪৪২

জার্মান চেম্বারের ভার্চুয়াল সেমিনারে বক্তারা

স্বয়ংক্রিয় রাজস্ব ব্যবস্থা নিশ্চিতের দাবি

নিজস্ব প্রতিবেদক   

১৭ জুন, ২০২১ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



২০২১-২২ অর্থবছরের প্রস্তাবিত বাজেট অভ্যন্তরীণ শিল্পায়ন, কর্মসংস্থান ও ব্যবসাবন্ধব হলেও রাজস্ব আদায়ে দক্ষতার অভাবে সরকারের লক্ষ্য অনুসারে রাজস্ব আদায় কঠিন হয়ে পড়বে। এ ছাড়া উদ্যোক্তাদের হয়রানি বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কা করা হচ্ছে।

বক্তারা আরো বলেন, সরকারের বিশাল ঘাটতি বাজেট বাস্তবায়ন করতে হলে রাজস্ব আদায় নিশ্চিত করতে হবে। এ জন্য কর ও শুল্ক আদায়ে দ্রুত স্বয়ংক্রিয় ব্যবস্থাপনা নিশ্চিতের তাগাদা দিয়েছেন ব্যবসায়ীরা। এটা করা না গেলে বাস্তবায়নে রাজস্ব আদায়ের নামে করদাতাদের প্রতি হয়রানি বাড়ে। একই সঙ্গে সরকারের কাঙ্ক্ষিত রাজস্ব লক্ষ্যমাত্রা অর্জনেও বাধা তৈরি হয়। গতকাল বুধবার বাংলাদেশ জার্মান চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (বিজিসিসিআই) আয়োজিত  ‘পোস্ট বাজেট : ট্যাক্স অ্যান্ড ট্যারিফ ইমপ্লিকেশন অন ট্রেড অ্যান্ড কমার্স’ বিষয়ে আলোচনায় বক্তারা এসব কথা বলেন।

বিজিসিসিআই সভাপতি থমাস হফম্যানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জার্মানিতে বাংলাদেশ সরকারের রাষ্ট্রদূত সাবেক জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের চেয়ারম্যান মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া। বিজিসিসিআই উপদেষ্টা রাষ্ট্রদূত শাহেদ আখতারের সঞ্চালনায় এতে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন আহমেদ মাশুক অ্যান্ড কম্পানির প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা মাশুক আহমেদ। অন্যদের মধ্যে বক্তব্যে দেন তৈরি পোশাক প্রস্তুত ও রপ্তানিকারকদের সংগঠন বিজিএমইএ সভাপতি মো. ফারুক হাসান, আমেরিকান চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি (অ্যামচেম) সভাপতি সৈয়দ এরশাদ আহমেদ। ভার্চুয়াল এই আলোচনায় বক্তারা আরো বলেন, প্রস্তাবিত বাজেটে ১০ বছরের কর অবকাশ সুবিধা দেশের শিল্পায়ন ও কর্মসংস্থানে সুযোগ তৈরি করবে। প্রধান অতিথির বক্তব্যে মোশাররফ হোসেন ভূঁইয়া বলেন, করোনা মহামারির ফলে সারা বিশ্বের মতো বাংলাদেশও সংকটময় সময় অতিক্রান্ত করছে। এ সময় জনগণের কথা বিবেচনায় নিয়ে সরকার ছয় লাখ তিন হাজার কোটি টাকার একটি বড় বাজেট দিয়েছে।



সাতদিনের সেরা