kalerkantho

শুক্রবার  । ১৮ অক্টোবর ২০১৯। ২ কাতির্ক ১৪২৬। ১৮ সফর ১৪৪১              

১৫ মণের গরু দেড় বছরে ৪২ মণ

চাটমোহর (পাবনা) প্রতিনিধি   

৫ আগস্ট, ২০১৯ ০০:০০ | পড়া যাবে ২ মিনিটে



১৫ মণের গরু দেড় বছরে ৪২ মণ

গরুটির দৈর্ঘ্য ৯ ফুট আর উচ্চতা সাড়ে পাঁচ ফুট। ওজন ৪২ মণ। এ খবর রটে যাওয়ায় গরুটি দেখতে প্রতিদিন দূর-দূরান্ত থেকে ভিড় করছে উত্সুক মানুষ। সাদা-কালোর মিশেলে বিশালাকার ষাঁড়টির নাম রাখা হয়েছে ‘টাইগার’। কোরবানি পশুর হাটে এর দাম হাঁকা হয়েছে ৩০ লাখ টাকা। পাবনার চাটমোহর উপজেলার মিনারুল ইসলামের খামারে গরুটি বেড়ে উঠেছে। এক বছর চার মাস আগে প্রতিবেশীর কাছ থেকে ১৫-১৬ মণ ওজনের গরুটি কিনে নেন মিনারুল। এরপর দেশীয় পদ্ধতিতে নিজের খামারে মোটাতাজা শুরু করেন। ধীরে ধীরে গরুটির ওজন বাড়তে থাকে। ফিজিয়ান জাতের এ গরুটির দেখাশোনা করে চারজন শ্রমিক।

মিনারুলের স্ত্রী জাকিয়া সুলতানা জানান, তিনি তাঁর স্বামীকে গরু পালনে সহযোগিতা করেন। টাইগারকে দেখতে প্রতিদিন অনেক লোক আসে।

মিনারুল বললেন, ‘গরুটি কিনি এক লাখ ৪২ হাজার টাকা দিয়ে। তখন ওজন ছিল ১৫ থেকে ১৬ মণ। দেশীয় খাবার খাইয়ে মোটাতাজা করা হয়েছে। আমি এর মূল্য চেয়েছি ৩০ লাখ টাকা। গরুর ওজন ৪২ মণ ছাড়িয়ে গেছে।’

পাবনা জেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডা. আল মামুন হোসেন বলেন, ‘পাবনা জেলায় এ বছর খামারিরা সম্পূর্ণ দেশীয় পদ্ধতিতে পশুগুলো মোটাতাজা করেছেন।’

মন্তব্য



সাতদিনের সেরা